banglanewspaper

নিজস্ব প্রতিনিধি: দীর্ঘ প্রতীক্ষিত ডট বাংলা ডোমেইন জনগণের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে এটি উদ্বোধন করেন।

শনিবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে সরকারি বাসভবন গণভবনে এক অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে তিনি এই ডোমেইনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন। এ সময় ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম উপস্থিত ছিলেন। এখন থেকে ডট বাংলা ডোমেইনটির সার্ভিস আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করলো।

ডট বাংলা এই ভাষার ক্ষেত্রে আরেকটি আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি। ডট বাংলা ডোমেইন চালুর মাধ্যমে সারাবিশ্বে বাংলা ভাষাভাষী মানুষ ইন্টারনেটে নিজের ভাষায় প্রবেশ করতে পারবেন। যেমন- বাংলায় ‘ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়’ লিখলেই মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট চলে আসবে। বাংলাদেশের পাশাপাশি ভারত সরকারের মাধ্যমে পশ্চিমবঙ্গ এবং সিয়েরা লিওনও ডট বাংলার জন্য আবেদন করেছিল।

এর আগে ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিব ফয়জুর রহমান চৌধুরী বাসসকে বলেন, ডোমেইন উদ্বোধনের পর এটি জনগণের মধ্যে বিতরণ করা হবে।

রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন টেলিকমিউনিকেশন্স কোম্পানি লিমিটেড (বিটিসিএল) দীর্ঘ প্রক্রিয়ার পর গত ৪ অক্টোবর বাংলাদেশের কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে বরাদ্দ দেয়ার পর গ্রাহকদের মাঝে ডট বাংলা ডোমেইন বিতরণ শুরুর সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম বলেন, ডট বাংলা ডোমেইনের অধিকার পাওয়ার পর তারা এটি বিজয়ের মাস ডিসেম্বরে জনগণের জন্য উন্মুক্ত করতে চান।

কর্মকর্তারা জানান, বিটিসিএল ডোমেইনের জন্য দরখাস্ত আহবান করবে। তারা বলেন, আগ্রহী গ্রাহকেরা অনলাইনের মাধ্যমে ডট বাংলার জন্য সকল প্রক্রিয়া সম্পন্ন করবে। রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন মোবাইল কোম্পানি টেলিটক রেজিস্ট্রেশন ফি গ্রহণ করবে।

ইন্টারন্যাশনাল কর্পোরেশন অব এ্যাসাইন্ড ন্যামস এ্যান্ড নাম্বার্স (আইসিএএএন) আনুষ্ঠানিকভাবে বাংলাদেশকে ডট বাংলা (বাংলা) ইন্টারনেট ডোমেইন বরাদ্দ দেয়।

গত ৪ অক্টোবর এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে আইসিএএনএন ডাক, টেলিযোগাযোগ এবং তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়কে পত্র পাঠিয়েছে। ভারতের পশ্চিমবঙ্গ এবং সিয়েরালিয়ন ডট বাংলা ডোমেইনের জন্য আবেদন করেছে।

এর আগে আইসিএএনএন ডট বিডি অথবা বিডি হিসেবে বাংলাদেশের জন্য অপর একটি ডোমেইন বরাদ্দ দেয়। এখন থেকে বাংলা বাংলাদেশের নিজস্ব ইউনিকোড ডোমেইন লেভেল। বাংলা ওয়েব সাইটের জন্য এটা দ্বিতীয় শীর্ষ পযার্য়ের কান্ট্রি ডোমেইন (টিএলডি)।

বিটিসিএল সূত্রে জানা যায়, বিডির নিবন্ধিত গ্রাহকের সংখ্যা ৩৬ হাজার ৫শ’তে পৌঁছেছে। গ্রাহকরা বাংলা ফন্টে বিটিসিএল. বাংলা টাইপ করে বিটিসিএল’র ওয়েব সাইটে (ডব্লিউডব্লিউডব্লিউ.বিটিসিএল.কম.বিডি) যেতে পারেন।

ট্যাগ: