banglanewspaper

ডেস্ক রিপোর্ট: সুইডেনের রানী সিলভিয়া বলেছেন, রাজকীয় যে প্রাসাদে তিনি বাস করেন তাতে ভূত আছে।

তিনি বলেন, এই প্রাসাদের 'ক্ষুদে বন্ধু' অর্থাৎ ভূতদের সাথেই তার বসবাস । "এটা খুবই উত্তেজনাকর, তবে এতে ভয়ের কিছু নেই" - বলেন রানী।

সুইডেনের রাজপরিবার বাস করেন রাজধানী স্টকহোমের কাছে ১৭শ শতাব্দীতে নির্মিত ড্রটনিংহোলম প্রাসাদে ।

এটি হচ্ছে রানী সিলভিয়া এবং তার স্বামী রাজা ১৬শ কার্ল গুস্তাফ-এর স্থায়ী বাসভবন।

সুইডেন

সুইডেনের রাজপ্রাসাদ

এটিকে নিয়ে নতুন তৈরি একটি প্রামাণ্যচিত্রে দেয়া সাক্ষাতকারেই রানী প্রাসাদে ভূতের বসবাসের কথা বলেন। প্রামাণ্যচিত্রটি এসভিটি টিভিতে বৃহস্পতিবার দেখানো হবে।

৭৩ বছর বয়স্ক রানী বলেন, আপনি এটা অনুভব করবেন যে প্রাসাদে আপনি পুরোপুরি একা নন। "তবে এই ভূতেরা খুবই বন্ধুসুলভ।"

রাজা কার্ল গুস্তাফের বোন প্রিন্সেস ক্রিস্টিনাও রানীর কথা সমর্থন করেছেন।

সুইডেন

রানী সিলভিয়া ও রাজা কার্ল গুস্তাফ

তিনি বলেন , প্রাসাদটির ভেতরে অনেক শক্তির অস্তিত্ব অনুভব করা যায়।

প্রাসাদটি সারা বছরই দর্শনার্থীদের জন্য খোলা থাকে । তবে দক্ষিণ দিকের যে অংশে রাজপরিবারের সদস্যরা থাকেন - সেখানে দর্শকরা যেতে পারেন না।

"রাজা-রানীর বন্ধু ভূতেরা সম্ভবত ওখানেই বাস করে। জায়গাটা সৌখিন ভূত শিকারীদের ঘুরে দেখা উচিত" - দি লোকাল নামে একটি ওয়েবসাইট এমনই মন্তব্য করেছে এ খবরের পর।

ট্যাগ: