banglanewspaper

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ভারতের হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি’র লোকেরা নকল হিন্দু বলে আখ্যায়িত করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

বৃহস্পতিবার পশ্চিমবঙ্গের মালদহে প্রশাসনিক বৈঠকের পর এক জনসভায় মমতা বলেন, ‘তোমরা নকল হিন্দু। কারণ, মুখে হিন্দু বললেই কেউ হিন্দু হয়ে যান না।’

রাজ্য সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নের খতিয়ান দেওয়ার পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তথা বিজেপি-কে একহাত নিতেও ছাড়েননি তিনি। সারদা থেকে হিন্দুত্ব, আধার থেকে মাহালি দম্পতির তৃণমূলে যোগদান, নোট বাতিল থেকে নারদা- এ দিনের জনসভার মমতার ভাষণে জায়গা করে নিয়েছে অনেক প্রসঙ্গই।

রাজ্যে বিজেপি-কে যে সহজে জমি দখল করতে দেবেন না, তা ফের স্পষ্ট করে দেন মমতা। মালদহ-সহ রাজ্যে একাধিক উন্নয়নমূলক প্রকল্পের ঘোষণা করে তাঁর দাবি, “২০১৯-এ (কেন্দ্রে) ক্ষমতায় ফিরবে না বিজেপি।” হনুমানজয়ন্তীতে অস্ত্র নিয়ে এ রাজ্যে বিজেপি নেতা-কর্মীদের মিছিলের প্রসঙ্গ মনে করিয়ে দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর দাবি, “বিজেপি আসলে ছদ্মবেশী হিন্দু।” কারণ তাঁর মতে, অস্ত্র দিয়ে রামের পুজো হয় না।

বিজেপি-র কথার ফাঁদে পা না দিতে রাজ্যবাসীকে অনুরোধ করে মমতা বলেন, “এঁরা মিথ্যা কথা বলেন। এঁদের ক্ষমা করবেন না।” প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’ প্রকল্পকে কটাক্ষ করে মমতার দাবি, তা শুধুই ‘কাগুজে বিজ্ঞাপন’।

ট্যাগ: