banglanewspaper

নিজস্ব প্রতিবেদক : গত বৃহষ্পতিবার (১৭ আগস্ট) জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে কলকাতায় সাবেক ইসলামিয়া কলেজের (বর্তমানে মৌলানা আজাদ কলেজ) রেজা আলী ওয়াছাথ হলে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ইউজিসি চেয়ারম্যান প্রফেসর আবদুল মান্নান। কলকাতাস্থ বাংলাদেশ ডেপুটি হাইকমিশন এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

মূল প্রবন্ধে তরুণ শেখ মুজিবের ছাত্র জীবনের কথা স্মরণ করে প্রফেসর মান্নান বলেন, তিনি (বঙ্গবন্ধু) ইসলামিয়া কলেজে পড়াশুনাকালীন উপ-মহাদেশে ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলনে যুক্ত হন। পাকিস্তানের দীর্ঘ ২৩ বছরের শাসনের সময়ে বঙ্গবন্ধুর ত্যাগ, বাংলাদেশের স্বাধীনতায় ও যুদ্ধবিধ্বস্ত বাংলাদেশের পুনর্গঠনে তাঁর অবদানের কথা ইউজিসি চেয়ারম্যান তাঁর বক্তব্যে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন।

তিনি আরও বলেন, ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে সেনাবাহিনীর একটি অংশ এবং জাতির জনকের কাছের কিছু মানুষের সম্মিলিত ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়নে তাঁর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা বর্তমানে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।

মৌলানা আজাদ কলেজের প্রিন্সিপ্যাল অধ্যাপক সুরঞ্জন দাস অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। কলকাতাস্থ বাংলাদেশের ডেপুটি হাই কমিশনার জনাব তৌফিক হাসান  অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন। 

এছাড়াও অনুষ্ঠানে ‘বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কর্ম’-এর উপর একটি প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়। 

উল্লেখ্য, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এই কলেজ থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। দেশ ভাগের পূর্বে একজন ছাত্র হিসেবে তিনি তাঁর রাজনৈতিক জীবন এখানে শুরু করেছিলেন।