banglanewspaper

ক্রীড়া ডেস্ক : শেন ওয়ার্নের বিরুদ্ধে পর্ন তারকাকে মারধরে যে অভিযোগ উঠেছিল, তা মিথ্যা প্রমাণিত হয়েছে। একই সঙ্গে সিসিটিভির ফুটেজ দেখে পুলিশ অস্ট্রেলিয়ার কিংবদন্তী এই ক্রিকেটারকে অভিযোগ থেকে মুক্তি দিয়েছে।

এর আগে বেশকিছু সংবাদমাধ্যম জানায়, ওই দিন রাতে নাইট ক্লাবটিতে ঝগড়া বাধে ওয়ার্ন ও ভ্যালেরির। এক পর্যায়ে মেজাজ হারিয়ে পর্ন তারকার গালে থাপ্পড় মারেন অজি কিংবদন্তি। 

ঘটনা তদন্তে ক্লাবের সিসিটিভি জব্দ করে পুলিশ। তা দেখে বিচার-বিশ্লেষণ করে তারা এ সত্যে উপনীত হয়েছেন যে, ওই রাতে ভ্যালেরিকে থাপ্পড় মারেননি ওয়ার্ন। এটি ছিল প্রচার পাওয়ার জন্য পর্ন তারকার মনগড়া অভিযোগ।

এ ঘটনায় শেন ওয়ার্ন এক টুইট বার্তায়, আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগের সংবাদ দেখে আমি বিস্মিত। প্রকৃত সত্য উদঘাটনে আমি পুলিশকে সহায়তা করেছি। তারা সিসিটিভি ফুটেজ হাতে পেয়েছিল। তা পর্যবেক্ষণ, বিশ্লেষণ করে আমাকে বলেছে; এ অভিযোগ থেকে আমি মুক্ত। পুলিশ আমার বিরুদ্ধে আর কোনো অ্যাকশনে যাবে না। এখানেই গল্পের সমাপ্তি।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার নিজের ভেরিফায়েড টুইটার অ্যাকাউন্টে ওয়ার্নের ঘুষিতে কালো হয়ে যাওয়া গালের ছবি পোস্ট করেন ভ্যালেরি। এর সঙ্গে অভিযোগের ভিত্তিতে ওয়েস্ট মিনিস্টার ব্যুরো কমান্ডের তদন্তের কার্ডের ছবিও সংযুক্ত করেন ৩০ বছরের গ্ল্যামার গার্ল। যার ক্যাপশনে লেখেন- আমি গর্বিত? একজন নারীকে সে আঘাত করেছে? নিকৃষ্ট প্রাণি।

ট্যাগ: