ইয়ানূর রহমান : নব্য জেএমবি সদস্য খাদিজা আক্তার ও দুই বছর বয়সী সন্তান রাজুকে মঙ্গলবার বেলা আড়াইটার দিকে আদালতে হাজির করে পুলিশ। যশোরের অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ আকরাম হোসেন তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন। একই সঙ্গে পুলিশের সাত দিনের রিমান্ড আবেদনের শুনানির জন্য ১৯ অক্টোবর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

গত রোববার রাত দশটার দিকে পুলিশের একাধিক টিম যশোর শহরের ঘোপ নওয়াপাড়া রোডের একটি বাড়ি ঘিরে ফেলে। পরদিন সোমবার বিকেলে ওই বাড়ির দোতলার একটি ফ্ল্যাট থেকে বের করা হয় খাদিজা ও তার তিন শিশু সন্তানকে।

ঘটনার ব্যাপারে সোমবার রাতে যশোর কোতয়ালী থানার ইন্টিলিজেন্স অ্যান্ড কমিউনিটি পুলিশিংয়ের পরিদর্শক তোফায়েল আহমেদ বাদী হয়ে খাদিজা ও তার স্বামী মসিউরের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ৪-৫ জনের নামে সন্ত্রাসবিরোধী আইনে মামলা করেন। 

মঙ্গলবার দুপুরে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা খাদিজাকে অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করে সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। বিচারক শুনানি শেষে খাদিজাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন এবং রিমান্ড শুনানির জন্য ১৯ অক্টোবর দিন ধার্য করেন।

এদিকে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জানিয়েছেন, তিন শিশুর মধ্যে ছেলে রাজুর বয়স দুই বছর হওয়ায় তাকে খাদিজার সঙ্গে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। দুটি মেয়ে শিশুকে তাদের নানার হেফাজতে দেওয়া হয়।