জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট প্রতিনিধি॥ লালমনিরহাটের আদিতমারীতে ১০ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনায় শাহজাদা মিয়া (৬০) নামের এক জনকে আটক করেছে থানা পুলিশ। আটক শাহজাদা উপজেলার সাপ্টিবাড়ি ইউনিয়নের পশ্চিম দৈলজোড় গ্রামের একাব্বর আলীর ছেলে।

বৃহস্পতিবার এ ঘটনায় আদিতমারী থানায় মেয়ের বাবা জামিনুর রহমান বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে শাহজাদা মিয়াকে (৬০) অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করেছেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিকেলে আদিতমারী থানা পুলিশ উপজেলা পরিষদ চত্বর সংলগ্ন এলাকা থেকে শাহজাদাকে আটক করেছে। 

মামলার বিবরণ ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে আদিতমারী উপজেলার সাপ্টিবাড়ি ইউনিয়নের পশ্চিম দৈলজোড় গ্রামের শাহজাদা মিয়া (৬০) তারই প্রতিবেশী জামিনুর রহমানের ১০ বছরের শিশু কন্যাকে বাড়িতে একা পেয়ে ৩শ গজ দূরে একটি ধান ক্ষেতে ডেকে নিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। শিশুটির চিৎকার শুনে এলাকাবাসী দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে তাকে উদ্ধার করে। এসময় শাহজাদা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।

এ ঘটনায় আদিতমারী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন শিশুটির বাবা জামিনুর রহমান। অভিযোগ দায়েরের পর পরই থানা পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে উপজেলা পরিষদ চত্বর সংলগ্ন এলাকা থেকে ধর্ষনের চেষ্টাকারী শাহজাদাকে আটক করেন। একটি নির্ভরযোগ্য সুত্র মতে, ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনাটি পুলিশের কাছে অকপটে স্বীকার করেছেন শাহজাদা মিয়া। 

শিশুটির বাবা জামিনুর রহমান এ ঘটনার সুষ্ঠ বিচার দাবী করে বলেন, আমার ছোট এই মেয়েটিকে নিয়ে আমি এখন কোথায় গিয়ে দাঁড়াব।

আদিতমারী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হরেশ্বর রায় ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, আটক শাহজাদাকে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।