banglanewspaper

সন্তান ছেলে নাকি মেয়ে হয়েছে তা নিয়ে অনেকেরই অনেকরকম প্রতিক্রিয়া দেখা যায়। তাই বলে সন্তান ধবধবে সুন্দর হয়েছে দেখে কেউ অবাক হয় নাকি! কিন্তু ধবধবে ফর্সা ত্বক আর সোনালি চুল নিয়ে সন্তান জন্ম নিলে কৃষ্ণাঙ্গ দম্পতি তো অবাক হবেই।

সন্তানকে দেখে প্রথমেই তাদের মনে হয়েছিল, এ সন্তান কী সত্যিই তাদের? প্রথমে বিশ্বাসই করতে পারছিলেন না অফ্রিকান দম্পতি; হতবাক চিকিৎসকরাও।

মিরাক্যাল ঘটনার জন্ম দয়ো ওই কৃষ্ণাঙ্গ দম্পতির নাম ফ্রান্সিস ও অার্লেট শিবাঙ্গু। ২০০৮ সালে তাদের বিয়ে হয়। ফ্রান্সিস ও অার্লেট দু’জনেই এখন লাফবরোতে থাকেন।

মাস খানেক আগে ইংল্যান্ডের লেস্টার রয়্যাল ইনফার্মারি হাসপাতালে তাদের ওই শ্বেতাঙ্গ পুত্র সন্তান ড্যানিয়েল জন্ম নেয়।

ড্যানিয়েলের জন্মের পরই ‘মিরাক্যাল’ দেখে চমকে ওঠেন ওই দম্পতি। অবাক চিকিৎসকরাও। কারণ কৃষ্ণাঙ্গ পরিবারে এমন ঘটনা এই প্রথম। ধবধবে সাদা চামড়া আর সোনালী চুল নিয়ে জন্মেছে ড্যানিয়েল।

২৮ বছরের ফ্রান্সিস জানান, প্রথমে তিনি বিশ্বাসই করেননি ড্যানিয়েল তারই সন্তান। অনেকে এই নিয়ে নানান গুজবও ছড়াতে শুরু করে। কিন্তু ফ্রান্সিস জানান, প্রথমে একটু খটকা লাগলেও স্ত্রীকে সম্পূর্ণ বিশ্বাস করেন তিনি। তাছাড়া ভাল করে দেখলেই বোঝা যায়, ড্যানিয়েলের চোখ, নাক, মুখের আদলের সঙ্গে তার এবং অার্লেটের প্রচুর মিল রয়েছে।

২৫ বছরের অার্লেট জানান, ‘‘ড্যানিয়েলের জন্মের পর সকলেই চুপ করে গিয়েছিল। কিন্তু ওকে একবার দেখেই আমি বুঝেছিলাম, ও আমাদের। ওকে কোলে নেয়ার পরেই সেই টানটা অনুভব করলাম। আসলে ড্যানিয়েল আমাদের মিরাক্যাল।’’ 

ফ্রান্সিস জানান, সম্ভবত ছয় প্রজন্ম আগে তাদের পরিবারে এমন শ্বেতাঙ্গ সন্তানের জন্ম হয়েছিল। কিন্তু এ ব্যাপারে সঠিকভাবে কিছু জানা যায় না।

ফ্রান্সিস ও অার্লেটের দু’বছরের একটি পুত্রসস্তান রয়েছে। তবে সে একেবারেই স্বাভাবিক।

তবে ড্যানিয়েলের ক্ষেত্রে কেন এমন হল তার সঠিক উত্তর দিতে পারেননি চিকিৎসকরাও।

ট্যাগ: Banglanewspaper শ্বেতাঙ্গ সন্তান জন্ম কৃষ্ণাঙ্গ দম্পতি