banglanewspaper

নিজস্ব প্রতিনিধি: কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকী নাজমুল আলম ব্যাংক উদ্যোক্তা বলে বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে খবর প্রকাশের পর এ ব্যাপারে খোলাসা করেছন এই নেতা। ২০১১ সালের জুলাইয়ে ২৭তম কাউন্সিলের মধ্য দিয়ে সাধারণ সম্পাদক হওয়া নাজমুল আজ শুক্রবার সকাল আটটার দিকে তার নিজের ফেসবুক ওয়ালে একটি স্ট্যাটাস দেন।

সেখানে তিনি লেখেন, ‘আমি কোন ব্যাংকের পরিচালক কিংবা উদ্যোক্তা কিছুইনা আমার এক অসহায় বন্ধুকে এক দানবের থাবানল থেকে রক্ষা করেছিলাম সে পরিচালক হয়েছিলো শুধু তার উপর যেনো দানবের থাবা আর না পরে সেজন্য আমার নামে কিছু প্রাইমারী শেয়ার কিনেছিলো আমিও বোকার মতো রাজী হয়েছিলাম । সেই ব্যাংকে কোন একাউন্ট ও নেই কিংবা যাইওনি কখনও। আজ সারাদিন সামাজিক মাধ্যম গরম ছিলো সিদ্দিকী নাজমুল আলম কে নিয়ে। বিতর্কিত নিউজ এটা আমার নিত্যদিনের সঙ্গী এবং আসিফ নজরুলের মতো পাপীও শেয়ার করেছে এবং আমি নিশ্চিত কোন রমনীকে সাথে নিয়ে মদ্যপানে উদযাপন করেছে আমার বিষয়টি কারন তার সাথে আমার হিসেবটা অনেক পুরোনো যেটা অনেকেই জানেন।’

তিনি আরো লেখেন, ‘আর যারা আত্মতৃপ্তির ঢেঁকুর গিলছেন তাদের বলি দৌড়াতে থাকেন হাপাতে হাপাতে দেখবেন সিদ্দিকী নাজমুল আলম সাদা ফকফকা কারন সুযোগ থাকা সত্বেও কোন ভবন নিয়ন্ত্রন কিংবা সরকারি কাজে দালালি কিংবা কমিশন খেয়ে কোন মানুষের উপকার করার মতো ঘটনা আমার ডিকশনারীতে নেই। যেটা হরহামেশাই অনেকেই করেন।কতকিছু আমাকে বানালেন শেষ আইটেম এইটা দেখি কতটুকু হিট হয়।’

সিদ্দিকী নাজমুল আলম আরো লেখেন, ‘আর সংবাদপত্রে যে রিপোর্টার যে ভাষায় নিউজটি করছেন সে হয়তো অনেক জমিদারের পূত্র তবে আমি এখনও গর্ব করে বলি আমি নিম্ন মধ্যবিত্ত ঘরের সন্তান। তবে আমার শখ পূরন আমি করি কারন ছোটবেলা থেকেই আমার আত্মাকে আমি কখনোই কষ্ট দেইনা। লিখবো আরেকদিন হয়তো ..............’

ট্যাগ: Banglanewspaper ব্যাংকের উদ্যোক্তা নাজমুল আলম