banglanewspaper

ডেস্ক রিপোর্ট: হুক্কার ধোঁয়া সিগারেটের চেয়েও বেশি ক্ষতিকারক। ক্যানসার বিশেষজ্ঞেরা বলছেন, এই হুক্কা থেকে শ্বাসকষ্ট, শ্বাসনালীর রোগ, ফুসফুসের ক্যানসার, হৃদরোগ হতে পারে। অন্তঃসত্ত্বা মহিলাদের ক্ষেত্রে গর্ভপাতের আশঙ্কাও থাকে।

মুম্বাইয়ের এক নামী ক্যানসার হাসপাতালের চিকিৎসক পঙ্কজ চতুর্বেদী এবং কলকাতার মুখ ও গলার ক্যানসার চিকিৎসক সৌরভ দত্ত বলছেন, যারা হুক্কা খায় তারা সিগারেটের চেয়ে অনেক বেশি সময় এবং জোরে ধোঁয়া টানেন। তার ফলে ধোঁয়া অনেক বেশি পরিমাণে শরীরে ঢোকে। এক ঘণ্টা ধরে হুক্কা খেলে তা ১০০টি সিগারেট খাওয়ার সমান হয়। এ ছাড়া, একই পাইপ একাধিক লোকের মুখে ঘোরার ফলে সংক্রামক ব্যাধি ছড়ানোর আশঙ্কাও থাকে।

ডা. পঙ্কজ বলেন, ‘সিগারেটে এবং হুক্কায় একই ধরনের ক্ষতিকারক জিনিস থাকে। অ্যামোনিয়া, হাইড্রোজেন সায়ানাইড, ফরম্যালডিহাইডের মতো রাসায়নিকও থাকে।’

অনেকে অবশ্য বলছেন, তামাক ও নিকোটিন ছাড়া হুক্কা খেলে ক্ষতি কী?

চিকিৎসকেরা বলছেন, তামাকহীন হুক্কায় কার্বন মনোক্সাইডের মতো ক্ষতিকর রাসায়নিক থাকে। সেগুলি শরীরে গেলেও নানা দুরারোগ্য ব্যাধি হতে পারে। বেশির ভাগ হুক্কাতেই নানা রূপে তামাক ব্যবহার করা হয় বলেও তাঁদের দাবি। হুকায় ব্যবহৃত চিটেগুড় থেকে যে নিকোটিন বের হয়, তা থেকে হার্টের রোগ, অন্ত্রের রোগ হতে পারে।

ট্যাগ: Banglanewspaper সিগারেট ধোঁয়া