banglanewspaper

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) ঘোষিত নির্বাচনী তফসিলের স্থগিত চেয়ে হাইকোর্টে দুটি রিট দায়ের করেছেন রাজধানীর উত্তরের দুই ভোটার। পরে রিটের প্রাথমিক শুনানি শেষে আদেশের জন্য আগামীকাল বুধবার দিন ধার্য করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১৬ জানুয়ারি) হাইকোর্টের বিচারপতি নাঈমা হায়দার ও বিচারপতি জাফর আহমেদের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ আদেশ দেন। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার মোস্তাফিজুর রহমান। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোখলেছুর রহমান।

ভূঁইয়া বলেন, ইসির ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী ১৮ জানুয়ারি মধ্যে মনোনয়নপত্র জমা দিতে হবে। কিন্তু এখন পর্যন্ত ভোটার তালিকাই প্রকাশ করা হয়নি। এখন যিনি প্রার্থী হবেন, তিনি তো জানেন না তিনি ভোটার কিনা। তাছাড়া মনোনয়নপত্রে ৩০০ ভোটারের স্বাক্ষর থাকতে হবে। ভোটার তালিকা প্রকাশ না হলে সেটা কীভাবে সম্ভব?

এ আইনজীবী বলেন, উত্তর সিটি কর্পোরেশনে নতুন যুক্ত হওয়া ১৮টি ওয়ার্ড মিলে কাউন্সিলরের সংখ্যা পঁচাত্তর শতাংশ হয় না। কারণ নতুন ১৮টিতে তো নির্বাচনই হয়নি। এ ক্ষেত্রে মেয়র পদই তো গঠিত হচ্ছে না।

এদিকে সম্প্রসারিত ১৮টি ওয়ার্ডে যারা কাউন্সিলর হবেন, তারা পুরো পাঁচ বছর পাবেন না- কেন সে বিষয়েও প্রশ্ন তোলা হয়েছে ওই রিটে। একটি রিটে প্রধান নির্বাচন কমিশনার, স্থানীয় সরকার সচিব, উত্তর সিটি কর্পোরেশনের ভারপ্রাপ্ত মেয়রকে বিবাদী করা হয়েছে।

ট্যাগ: Banglanewspaper ঢাকা নির্বাচন হাইকোর্ট