banglanewspaper

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি : সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সখীপুর ইউপি চেয়ারম্যান ফারুক হোসেন রতন হত্যাচেষ্টা মামলায় গ্রেফতার দুই শিবির নেতা ও এক ছাত্রলীগ নেতাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত।

মঙ্গলবার মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা দেবহাটা থানার পুলিশ পরিদর্শক শরিফুল ইসলামের সাত দিনের রিমান্ড আবেদন শুনানি শেষে এ আদেশ দেন বিচারক এমএ জাহিদ। তবে অন্য আসামি কালিগঞ্জের বন্দকাটি গ্রামের নুরুল মোড়লের রিমান্ড মঞ্জুর করেননি আদালত।

রিমান্ড মঞ্জুর হওয়া আসামিরা হলেন, দেবহাটা উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, জেলা ছাত্র শিবিরের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর ও তালা উপজেলার জালালপুর ইউনিয়ন ছাত্রশিবিরের সাধারণ সম্পাদক শিমুল মোড়ল।

মামলার বিবরণে জানা যায়, গত ২ জানুয়ারি রাত সাড়ে আটটার দিকে সখীপুর থেকে মোটরসাইকেলযোগে বাড়ি ফেরার পথে সখীপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশে আওয়ামী লীগ নেতা ও সখীপুর ইউপি চেয়ারম্যানকে গুলি করে হত্যার চেষ্টা করা হয়। এ ঘটনায় আহতের মা মিনা বেগম বাদী হয়ে ৮ জানুয়ারি উপজেলা ছাত্র শিবিরের সাংগঠনিক সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল আজিজ ও সখীপুরের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মঈনুদ্দিন ময়নার নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ছয়জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন। পুলিশ পরদিন এজাহারভুক্ত সাদ্দাম হোসেন ও সন্দিগ্ধ আসামি হিসেবে জেলা ছাত্র শিবিরের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর ও তালা উপজেলার জালালপুর ইউনিয়ন ছাত্র শিবিরের সাধারণ সম্পাদক শিমুল মোড়লকে গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠায়। একই মামলায় কালিগঞ্জের বন্দকাটি গ্রামের আরশাদ আলীর ছেলে নুরুল মোড়লকে গত ১১ জানুয়ারি গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা দেবহাটা থানার পুলিশ পরিদর্শক শরিফুল ইসলাম এইসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

ট্যাগ: Banglanewspaper সাতক্ষীরা রিমান্ড