banglanewspaper

এবার গলাকেটে খুন করা হলো জনপ্রিয় লোকসংগীত শিল্পী মমতা শর্মাকে। গতবছর গুলিতে ঝাঁঝরা করে দেয়া হয়েছিল গায়িকা হর্ষিতা দাহিয়াকে। রোহতকের বানিয়ানি গ্রাম থেকে বৃহস্পতিবার মমতার রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার করে পুলিশ। 

গলাকেটে কুপিয়ে মমতাকে খুন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। হরিয়ানার লোকগানের জন্যই নামডাক ছিল বছর চল্লিশের মমতার।

পুলিশ জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার বানিয়ানি গ্রামের একটি মাঠের ধারে মমতার রক্তাক্ত দেহ পড়ে থাকতে দেখা যায়। তার গলায় গভীর ক্ষত ছিল। ওই গ্রামেই হরিয়ানার মুখ্যমন্ত্রী মনোহর লাল খাট্টার বাড়ি রয়েছে।

মমতার পরিবারের দাবি, গত রবিবার থেকেই তার কোনও খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। স্থানীয় থানায় নিখোঁজ ডায়েরিও করা হয়েছিল। কিন্তু পুলিশ এই ব্যাপারে কোনও গা করেনি বলে আনন্দবাজার পত্রিকা খবরে বলা হয়।

মমতার ছেলে ভারত জানিয়েছেন, রবিবার সোনিপতের গহনায় একটি জলসায় গান গাওয়ার কথা ছিল তার মায়ের। ওই অনুষ্ঠানে যোগ দিতেই সকাল ৮টা নাগাদ বাড়ি থেকে বের হন মমতা। সঙ্গে ছিলেন তার এক সহকর্মী মোহিত কুমার।

সাড়ে ১০টা নাগাদ মোহিত ফোন করে ভারতকে জানান, মমতা তাদের গাড়ি ছেড়ে কয়েকজন লোকের সঙ্গে অন্য একটি গাড়ি করে চলে গিয়েছেন। ওই লোকেদের আগে থেকেই চিনতেন বলে মোহিতকে জানিয়ে গিয়েছিলেন মমতা। তার পর থেকেই তার আর কোনও খোঁজ মেলেনি।

পুলিশ জানিয়েছে, রবিবার মমতা কাদের সঙ্গে দেখা করেছিলেন সেটা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তার ফোনের কললিস্টও পরীক্ষা করা হচ্ছে।

হরিয়ানায় গায়িকা খুনের ঘটনা প্রথম নয়। গত বছরও, আততায়ীদের গুলিতে মৃত্যু হয়েছিল বছর বাইশের হর্ষিতা দাহিয়ার। তদন্তে উঠে এসেছিল চাঞ্চল্যকর তথ্য। হর্ষিতার বোন দাবি করেছিলেন, তার স্বামীই খুন করেছেন তার বোনকে।

ট্যাগ: Banglanewspaper জনপ্রিয় লোকসংগীত গলা কেটে হত্যা