banglanewspaper

ডেস্ক রিপোর্ট : পাঁচ বছর আগে ইউটিউব তাদের পার্টনার প্রোগ্রাম সবার জন্য উন্মুক্ত করে। এর ফলে যে কেউ ইউটিউবে একাউন্ট খোলা এবং ভিডিও আপলোড করার মাধ্যমে অর্থ আয় করতে পারেন। এত দিন মোটামুটি সহজ হলেও এবার এই নিয়মের ওপর কড়াকড়ি আরোপ করতে যাচ্ছে ইউটিউব কর্তৃপক্ষ।

এতদিন ইউটিউবে প্রকাশিত কোনো ভিডিওতে ১০ হাজার ভিউ থাকলেই সেই ভিডিওতে বিজ্ঞাপন পেতেন আপলোডকারী। কিন্তু এবার সেই সৃযোগ আর থাকছে না।

নতুন নিয়ম অনুযায়ী, কোনো ইউটিউব চ্যানেলে বিজ্ঞাপন পেতে গেলে সেই চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার সংখ্যা কমপক্ষে ১ হাজার হতে হবে। শুধু তাই নয়, বিগত ১২ মাসে অন্তত ৪ হাজার ঘণ্টা ভিডিও সেই চ্যানেলে দেখা হয়েছে এমন শর্ত জুড়ে দেয়া হয়েছে। তাহলেই কেবল সেই চ্যানেল বিজ্ঞাপন পাওয়ার যোগ্য বিবেচিত হবে।

আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে নতুন এই নিয়ম কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। তাদের দাবি, আপত্তিকর ও পাইরেটেড ভিডিও প্রদর্শন করে অর্থ আয়ের সুবিধা বন্ধ করতেই এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

সম্প্রতি আপত্তিকর কনটেন্ট বা ভিডিওর জন্য ইউটিউবে বিজ্ঞাপন বয়কট করার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বখ্যাত বিভিন্ন ব্র্যান্ড। বিষয়টি নিয়ে গুগলও বেশ অস্বস্তিতে রয়েছে। ব্র্যান্ডগুলো মনে করছে, আপত্তিকর ভিডিওতে তাদের বিজ্ঞাপন দেখানো হলে মানুষ ইউটিউবের ওই ভিডিওর সঙ্গে তাদের ব্র্যান্ডের তুলনা করবে।

উল্লেখ্য, এ বছর ফেব্রুয়ারি মাসে টাইমস নিউজপেপার অব লন্ডন ইউটিউব থেকে বিজ্ঞাপন সরিয়ে নিলে প্রথম হোচট খায় গুগল। পরে এটিঅ্যান্ডটি, ভেরিজনের মতো প্রতিষ্ঠান ইউটিউব থেকে বিজ্ঞাপন সরিয়ে নেয়। এরপর থেকেই বিজ্ঞাপন নীতিমালার ক্ষেত্রে কঠোরতা আনার পরিকল্পনা নেয় গুগল। তাই এখন ইউটিউব চ্যানেল খুলে অর্থ আয় করতে হলে প্রকৃত কনটেন্ট সরবরাহ করার পাশাপাশি ১০ হাজার ভিউ থাকতে হবে। তা না হলে চ্যানেলের জন্য কোনো অর্থ দেবে না গুগল।

ট্যাগ: Banglanewspaper ইউটিউব নিয়ম