banglanewspaper

স্বরূপকাঠী (পিরোজপুর) প্রতিনিধি: স্বরূপকাঠীর বলদিয়া গ্রামের জামায়াত নেতা আব্দুল হাকিম তার জমির পাশের একটি রাস্তা কেটে রেকর্ডীয় খাল দখল করায় চলাচলে দূর্ভোগ পোহাচ্ছে স্কুলগামী শিক্ষার্থীসহ এলাকাবাসী।

সরেজমিনে এলাকাবাসির অভিযোগের ভিত্তিতে গতকাল বলদিয়া গ্রামের মোঃ সাইদুল ইসলামের বাড়ির সামনে দেখা যায়, কর্মসৃজন প্রকল্পের মাধ্যমে পূর্বের রেকর্ডীয় রাস্তা উন্নত করন করে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ যা দুই অংশে কেটে পাশের রেকর্ডীয় খাল দখল করেছেন স্থানীয় জামায়াত নেতা আব্দুল হাকিম (৭০)।

রাস্তা কেটে নকশা অনুযায়ী ১৬ ফুট প্রস্থের খালের গতি রোধ করে মাত্র ৪ ফুট প্রস্থে নতুন খাল কেটে পুরনো খালের সাথে সংযোগ করে খালটি সচল রাখলেও রাস্তা চার খন্ডে বিভক্ত হয়েছে যে স্থানে একটি করে সুপারী গাছের সাঁকো (চার) দিয়ে চলাচল করতে হচ্ছে স্থানীয়দের।

এ ব্যাপারে মক্তবের শিক্ষা নিয়ে বাড়ি ফেরার পথে হুমায়রা (৫) জানায়, আগে ভাল ভাবে এখান থেকে যাওয়া যেতো কিন্তু একটি সুপারী গাছের উপর থেকে এখন যেতে হয়, খুবই ভয় লাগে।

তবে পাশের জমি মালিক কৃষক সাইদুর রহমান বলেন, জমিতে সেচ না করতে পারলে ফসল ফলানো সম্ভব নয়, হাকিম সাহেব রেকর্ডীয় খাল দখল করায় কৃষি কাজে খুবই ক্ষতি হবে। এসময় উপস্থিত এলাকার প্রায় শতাধিক লোক হাকিম মিয়ার এই কাজের তীব্র নিন্দা জানান।

স্থানীয় মুনির হোসেন অভিযোগ করেন, এই রাস্তা কেটে রেকর্ডীয় খাল দখল করার সময় আমরা বারন করলে আমাদের ঝামেলায় ফেলানোর হুমকি দেয় সে (হাকিম)।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মোঃ আব্দুল হাকিম মিয়া বলেন, রাস্তা কেটেছি প্রয়োজনে পুল করে দেব। চেয়ারম্যানের অনুমতি নিয়েই আমার জায়গা আমি কেটেছি।

এব্যাপারে বলদিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদ বলেন, তাকে নিষেধ করা সত্বেও সে এধরণের কাজে করেছে, বৃদ্ধ না হলে থাপ্পর দিয়ে রাস্তা ও খাল পূনরুদ্ধার করা হত। 

ট্যাগ: banglanewspaper স্বরূপকাঠী রাস্তা জামাত নেতার কান্ড