banglanewspaper

ডেস্ক রিপোর্ট: গরমের পরিচিত ফল তরমুজ। গ্রীষ্মের শুরু থেকেই বাজার ছেয়ে যায় তরমুজে। আর গরমে শরীরে জলের ভারসাম্য বজায় রাখতে যে তরমুজের জুড়ি মেলা ভার তাও আমাদের সবার জানা। কিন্তু তরমুজ খাওয়ার সময় বীজ ফেলে দেওয়াই দস্তুর। কিন্তু জানেন কি, তরমুজের বীজের কত গুণ? মরণব্যাধি থেকে আপনাকে বাঁচাতে পারে তরমুজে বীজ।

গবেষকরা বলছেন, তরমুজের বীজে এমন এক রাসায়নিক থাকে যা ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে অত্যন্ত কার্যকরী।  তাছাড়া তরমুজের বীজে থাকা একাধিক খনিজ গর্ভবতী মহিলাদের বিশেষ উপকারী।

তরমুজের বীজে থাকা লাইসিন নামে উৎসেচক ডায়াবেটিস বা মধুমেহ নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। ডায়াবেটিসে চমকে দেওয়ার মতো ফল দিতে পারে তরমুজের এই বীজ।

এছাড়া তরমুজের বীজে ক্যালোরির মাত্রা অত্যন্ত কম। এছাড়া তার মধ্যে রয়েছে ম্যাগনেশিয়াম, লোহা ও ফোলেট, যা গর্ভবতী নারীদের জন্য অত্যন্ত উপকারী।

তবে এ সবই থাকে তরমুজের বীজের খোলের নীচে থাকা অভ্যন্তরীণ অংশে। ফলে তরমুজের বীজ চিবিয়ে খেলেই তার সম্পূর্ণ উপকার মেলা সম্ভব। কারণ, সাধারণত বীজের ওপরের কঠিন খোল হজম করতে পারে না প্রাণীর পরিপাকতন্ত্র। 

ইস্ট ওয়েস্ট মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতাল চক্ষুরোগ বিশেষজ্ঞ ও ফ্যাকো সার্জনের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ডা. মো. নূরুল আলম জানান, সারাদিন যে পরিমাণ প্রোটিন প্রয়োজন, তার ৬০ শতাংশ পাওয়া যায় এককাপ তরমুজের বীজে। শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় বিভিন্ন ধরনের অ্যামাইনো অ্যাসিড রয়েছে। ফলে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে থাকে। করোনারি হার্ট ডিজিজের চিকিৎসার ক্ষেত্রেও তরমুজের বীজ একটি জরুরি উপাদান।

তরমুজের বীজে ভিটামিন-বি : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যানসার সোসাইটির রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, খাবার শক্তিতে পরিণত করে ভিটামিন-বি। নিয়াসিনের মতো ভিটামিন-বি স্নায়ুতন্ত্র ও পরিপাকতন্ত্র রক্ষণাবেক্ষণ করে।

তরমুজের বীজে মিনারেলস : তরমুজের বীজে রয়েছে প্রচুর ম্যাগনেসিয়াম। ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব হেলথের রিপোর্ট অনুযায়ী, ম্যাগনেসিয়াম ব্লাড প্রেসার নিয়ন্ত্রণে রাখে।

তরমুজের বীজে ফ্যাট : এককাপ শুকনো তরমুজের দানায় ৫১ গ্রাম ফ্যাট রয়েছে। এর ১১ শতাংশ স্যাচুরেটেড ফ্যাট। বাকিটা পলিস্যাচুরেটেড, মনোস্যাচুরেটেড এবং ওমেগা ৬ ফ্যাটি অ্যাসিড। আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশনের রিপোর্ট অনুযায়ী, মনো ও পলিস্যাচুরেটেড ফ্যাট রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়। ওমেগা ৬ ফ্যাটি অ্যাসিড উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে। ফ্যাটি অ্যাসিডে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ে।

তরমুজের বীজে আয়রন : এতে আছে পর্যাপ্ত আয়রন, যা চুলের শক্তি বাড়ায়। চুল পড়া কমায়। চুল পাতলা ও শুকনো হয় না। একটি পাত্রে একমুঠো তরমুজের বীজ নিয়ে ৭৫০ মিলিগ্রাম পানি দিয়ে অল্প আঁচে ৪৫ মিনিট ফুটিয়ে ঢেকে রাখুন। ঠাণ্ডা হলে পানিটুকু পান করুন। প্রতিদিন পান করলে ডায়াবেটিস দূর হবে। তরমুজের শুকনো বীজ চায়ের সঙ্গে মিশিয়ে খেলেও উপকার পাওয়া যায়।

ট্যাগ: Banglanewspaper মরণব্যাধি তরমুজ বীজ