banglanewspaper

ডেস্ক রিপোর্ট: মাজারের খাদেম রহমত আলী ও জাপানি নাগরিক কুনিও হোশি হত্যা মামলার প্রধান আইনজীবী রথীশ চন্দ্র ভৌমিকের (বাবু সোনা) লাশ পাওয়া গেছে।

স্ত্রী স্নিগ্ধা সরকারের তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার মধ্যরাতে শহরের তাজহাট মোল্লা পাড়ায় একটি নির্মাণাধীন বাড়িতে তার লাশ পাওয়া যায়। 

র‌্যাবের মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান রাত দেড়টায় এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, লাশ শনাক্তের জন্য নিকটাত্মীয়দের খবর দেয়া হয়েছে।

এর আগে পরিবারের উদ্যোগে মঙ্গলবার দিনভর রংপুর শহরের বাড়ির পাশের ডোবায় তল্লাশি চালানো হয়। সেখানে একটি রক্তমাখা শার্ট পাওয়া যায়। নতুন করে পুলিশ আরও দু’জনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। এ নিয়ে পুলিশের হেফাজতে রয়েছেন ছয়জন।

মঙ্গলবারও নগরীতে গণঅনশন, মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে বিভিন্ন সংগঠন। আইনজীবীরা এক সমাবেশ থেকে রথীশকে উদ্ধারের দাবি জানিয়ে ২৪ ঘণ্টার সময়সীমা বেঁধে দেন। অন্যথায় আন্দোলনের হুমকি দেয়া হয়।

মঙ্গলবার নিখোঁজ আইনজীবীর সন্ধানে পরিবারের পক্ষ থেকে দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত বাবু পাড়ায় নিজ বাড়ির পেছনে একটি ডোবায় তল্লাশি চালানো হয়। এ সময় পুলিশ-র‌্যাবের বিপুল সংখ্যক সদস্য উপস্থিত ছিলেন। ডোবায় তল্লাশি চালানোর সময় সেখানে একটি রক্তমাখা শার্ট পাওয়া যায়।

ওই শার্ট পাওয়ার পর পুলিশের তদন্ত কার্যক্রম নতুন মাত্রায় ভিন্ন দিকে মোড় নিয়েছে। ওই রক্তমাখা শার্টের মধ্যে নিখোঁজ আইজীবীর কোনো সম্পর্ক আছে কিনা- এ নিয়ে পুলিশের পক্ষ থেকে কোনো ব্যাখ্যা পাওয়া যায়নি। তবে তারা কোনো সম্ভাবনাকে উড়িয়ে দিচ্ছেন না। শার্টটি এখন মাহিগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক শাহ আলমের হেফাজতে রয়েছে বলে ওই পুলিশ কর্মকর্তা নিশ্চিত করেছেন।

রংপুর পুলিশের এএসপি (সার্কেল-১) সাইফুর রহমান সাইফ বলেন, ডোবায় তল্লাশির সময় যে শার্টটি পাওয়া গেছে সেখানে রক্তের মতো দাগ রয়েছে। কাদা পানিতে দাগটি ঠিক স্পষ্ট নয়। তাই শার্টের ‘ফরেনসিক’ পরীক্ষার পর বোঝা যাবে শার্টটি কার এবং ওই দাগ রক্তের কিনা।

তিনি আরও জানান, ঘটনায় জড়িত থাকতে পারে এমন সন্দেহে তাজহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের দু’জন শিক্ষককে মঙ্গলবার আটক করা হয়েছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে নিখোঁজ ঘটনায় কোনো ক্লু পাওয়া যায় কিনা তা দেখা হচ্ছে।

ট্যাগ: Banglanewspaper স্ত্রীর তথ্যে আইনজীবী রথীশ লাশ ডোবায়