banglanewspaper

ভারতের হিমাচল প্রদেশের কাংরা উপত্যকায় একটি স্কুলবাস ২০০ ফুট গভীর খাদে পড়ে কমপক্ষে ২৭ শিশু মারা গেছে। নিহতদের বেশিরভাগেরই বয়স ১০ বছরের কম। দুর্ঘটনায় স্কুলের দুজন শিক্ষক ও বাস চালকেরও মৃত্যু হয়েছে।  

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হিমাচল প্রদেশের রাজধানী সিমলা থেকে ৩২৫ কিলোমিটার দূরে সরু পাহাড়ি রাস্তায় খুব জোরে বাসটি চালাচ্ছিলেন চালক। এক জায়গায় গাড়িটি মোড় নিতে চাইলে চাকা ফঁসকে বাসটি ২০০ ফুট গভীর খাদে পড়ে যায়। বাসটি একটি বেসরকারি স্কুলের। যার নাম ‘ওয়াজির রাম সিংহ পাঠানিয়া মেমোরিয়াল পাবলিক স্কুল’। 

দুর্ঘটনার পর সেখানে ছুটে যান জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীর সদস্যরা। তাঁরা বাসে আটকে পড়া কয়েক শিশুকে উদ্ধার করেন। আহত শিশুদের ৯০ কিলোমিটার দূরে পঠানকোট হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। 

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইট করে এই ঘটনায় গভীর দুঃখপ্রকাশ করেছেন। হিমাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী জয়রাম ঠাকুর বলেছেন, ‘এই ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।’ মৃত ও জখম শিশুদের প্রত্যেককে ক্ষতিপূরণ বাবদ ৫ লক্ষ টাকা দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে হিমাচল রাজ্য সরকার।

ট্যাগ: banglanewspaper ভারত বাস