banglanewspaper

নিজস্ব প্রতিবেদক: কুষ্টিয়ার খোকসার গোপগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলমগীর হোসেন ওরফে আলমের বড় ছেলে গোপগ্রাম ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক তৌহিদ হোসেন রাজুকে ইয়াবাসহ আটক করেছে পুলিশ। রাজুকে ছাড়িয়ে নিতে আওয়ামী লীগের নেতারা।

থানার এসআই সোলাইমান হোসেন জানায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খোকসা থানা পুলিশের একটি দল উপজেলার বড়ইচারা গ্রামে অভিযান চালায়। এ সময় গোপগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের ছেলে তৌহিদ হোসেন রাজুকে পুলিশ চ্যালেঞ্জ করে। পরে রাজুর শরীর তল্লাশী করে ৫টি ইয়াবা ট্যাবলেট পায় পুলিশ। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানায় থানার একটি সূত্র। আজ বৃহস্পতিবার রাত ৮ টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত চেয়ারম্যান পুত্র রাজু থানার হাজতে ছিল। 

গোপগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানর আলমগীর হোসেনের সাথে মোবাইল ফোনে কথা বলা হলে তিনি জানান, এএসআই ওয়াজেদ আলীর সাথে রাজুর পুর্ব বিরোধ ছিল। পুলিশ তার ছেলে রাজুর পকেটে ইয়াবা দিয়ে গ্রেফতার করে নিয়ে গেছে। পরে এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানাবেন বলে জানান। 

এদিকে এলাকায় খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ঐ চেয়ারম্যানপুত্র ও ছাত্রলীগ নেতা এলাকার চিহ্নিত মাদকসেবী ও ব্যবসায়ী। তার অত্যাচারে অতিষ্ঠ গ্রামবাসী। রাজ আটক হওয়ার ঘটনায় এলাকায় স্বস্তি নেমে এসেছে।

পুলিশের এএসআই ওয়াজেদ আলীর সাথে মোবাইল ফোনে কথা বলার চেষ্টা করা হয় কিন্তু তিনি ফোন রিসিভ করেন নি।
থানা অফিসাস ইনচার্জ (ওসি) বজলুর রহমান ব্যস্ত থাকায় কথা বলতে অপারগতা প্রকাশ করেন।

ট্যাগ: Banglanewspaper খোকসা ইয়াবা