banglanewspaper

শরীফ আনোয়ারুল হাসান রবীন: মাগুরায় পুলিশ সদস্যের উপর হামলা ও যখম করার ঘটনায় জেলা বিএনপির নেতা ও ঠিকাদার ফরিদ খানসহ তার ভাগ্নে জাকারিয়ার নামে মাগুরা সদর থানায় মামলা হয়েছে।

গত রবিবারের এ ঘটনায় ফরিদ খানের স্ত্রীসহ পরিবারের ৪ সদস্যকে শন্তি ভঙ্গের আশংকায় ১৫১ ধারায় মামলা দিয়ে আজ সোমবার মাগুরা জেলা জজ আদালতে প্রেরণ  করা হলে  সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফিরোজ মামুন এর আদালত ফরিদ খানের স্ত্রী বিলকিস আক্তার ও আত্মীয়া সুমি খাতুনকে জামিন দিয়ে, কর্মচারি আল আমিন ও বিল্লালের জামিন আবেদন নাকোচ করে জেল হাজতে পাঠিয়ে দেয়।

মাগুরার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ছয়রউদ্দিন জানান- মাগুরা সদর থানায় পুলিশ সদস্যকে মারপিটের অভিযোগে বিএনপি নেতা ফরিদ খানের নামে সদর থানায় মামলা হয়েছে। তাদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

গত রবিবার দুপুরে মাগুরা শহরের ভায়নার মোড় এলাকায় পেট্রোলপাম্পের সামনে সামান্য ঘটনা নিয়ে ফরিদ খানের সাথে সদর থানায় কর্মরত পুলিশ সদস্য বোরহান উদ্দীনের কথা কাটাকাটি হয়, যার সুত্র ধরে ফরিদসহ তার সঙ্গীরা বোরহান উদ্দীনকে বেঞ্চের পায়া ভেঙ্গে পিটিয়ে মাথা ফাটিয়ে রক্তাত্ব যখম করে। আহত পুলিশ সদস্যকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় ফরিদ খান কে না পেয়ে তার পরিবারের ৬ সদস্যকে আটক করে নিয়ে আসা হয়, পরে তাদের মধ্যে দুজনকে রাতেই ছেড়ে দেয় পুলিশ। আজ তার স্ত্রীসহ পরিবারের ৪ সদস্যকে মামলা দিয়ে জেলা জজ আদালতে প্রেরণ করা হয়।

ট্যাগ: Banglanewspaper মাগুরা