banglanewspaper

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুরে মঠবাড়িয়ায় ভূয়া বরাদ্দ না দেয়ায় এতিমখানার সভাপতি কর্তৃক উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তাকে আখলাকুর রহমানকে পিটিয়ে জখম করার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

রোববার রাতে মঠবাড়িয়া থানায় উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তাকে আখলাকুর রহমান নিজে বাদী হয়ে তাকে হত্যা চেষ্টা, অফিস ভাংচুর ও সরকারি কাজে বাধা দানের অভিযোগ এনে হাজী গুলশান আরা শিশু সদনের সভাপতি আবদুল গফ্ফার (৫৫), শিক্ষক মাওলানা মোস্তফা মাহমুদ (৫০), তাদের সহযোগী মাসুম (৪৫) এজাহার নামীয় ও অজ্ঞাত নামা আরও ৪ জনকে আসামী করে এ মামলা দায়ের করা হয় বলে জানান মঠবাড়িয়া থানার ওসি (তদন্ত) মাজহারুল আমিন।

সোমবার আটককৃত আবদুল গফ্ফার ও মাওলানা মোস্তফা মাহমুদকে ওই মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে সোপর্দ করে।

এদিকে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তাকে আখলাকুর রহমানকে হত্যা চেষ্টা ও অফিস ভাংচুরের বিচারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। সোমবার দুপুরে মঠবাড়িয়া উপজেলা পরিষদের সমানের সড়কে ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধনে উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকর্তা, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ শিক্ষক সাংবাদিকসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মচারীরা অংশগ্রহণ করেন। 

পরে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মুহাম্মদ মনিরুজ্জামান এর সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক সেলিম মাতুব্বর, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ফারুকুজ্জামান, সহ-সভাপতি আরিফ-উল-হক, প্রচার সম্পাদক ফজলুল হক মনি, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা কবির হোসেন, সাংবাদিক মিজানুর রহমান মিজু, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক জুলহাস শাহিন ও মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল ইসলাম প্রমুখ। 

মঠবাড়িয়া থানার ওসি (তদন্ত) মাজহারুল আমিন জানান, আটককৃত দু’জনকে আদালতে পাঠানো হয়েছে এবং জড়িত বাকী আসামীদের গ্রেপ্তারে পুলিশের তৎপরতা অব্যহত আছে।  

উল্লেখ্য, মঠবাড়িয়া “হাজী গুলশান আরা শিশু সদন” এতিম খানায় ভূয়া এতিমের নামে সরকারী বরাদ্দ না দেয়ায় এতিম খানার সভাপতি আবদুল গফ্ফার ও তার ভাড়া করা দলবল রোববার বিকেলে উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তার কক্ষে ডুকে হামলা চালিয়ে গুরুতর জখম করে। 

ট্যাগ: banglanewspaper পিরোজপুর