banglanewspaper

ঈদের বাকি আর মাত্র ক'টা দিন। নতুন পোশাক কেনার পর তার সঙ্গে মিলিয়ে নতুন জুতা কিনতে এবার ক্রেতারা ছুটছেন জুতার দোকানে। শার্টের জন্য চাই জুতা, পাঞ্জাবির জন্য স্যান্ডেল। সবকিছু কেনার পর যদি মানানসই একজোড়া জুতা বা স্যান্ডেল না হয়, তাহলে কি ফ্যাশন পূর্ণতা পায়? তাই তো ফ্যাশন-সচেতন মানুষের  আরেকটি মনোযোগের জায়গা হলো জুতা-স্যান্ডেল। পছন্দসই একজোড়া জুতা-স্যান্ডেল না হলে যেন ঈদের আনন্দটাই মাটি।

তাই এবারের ঈদে ছেলে-বুড়ো সবার জন্য নানা ধরনের জুতা-স্যান্ডেলের পসরা সাজিয়েছে জীলস। ৩০০ টির’ও বেশি  বিভিন্ন আকর্ষণীয় ডিজাইন নিয়ে এসেছে  জীলস। 

জীলসের আরএসএম জানান, যেহেতু ঈদে পাঞ্জাবী বেশি চলে তাই পাঞ্জাবীর মানানসয় জুতা-স্যান্ডেলের ডিজাইন করা হয়। ঈদের সময় আত্মীয় স্বজনের বাড়ি বেড়াতে গেলে তখন অনেকেই ক্লোজ সু বা ফর্মাল সু পরে । সে দিকটি লক্ষ রেখেই অনেক কাস্টমার ঈদে দুই জোড়া জুতা কিনতে দেখা যায়। 

তিনি বলেন, এখন তরুণ প্রজন্ম আকর্ষণীয় ও স্টাইলিশ জুতা পছন্দ করে। সেদিকটি বিবেচনা করে জীলস স্টাইলিশ জুতা-স্যান্ডেল নিয়ে এসেছে। মূলত মধ্যবিত্তদের জন্য বেশি প্রোডাক্ট তৈরি করে জীলস। সেই সাথে বেশি দামের জুতা ও স্যান্ডেলও আছে জীলসের। 

তিনি আরও বলেন, নারীদের জন্য রয়েছে আকর্ষণীয় জুতা-স্যান্ডেল। নারীদের অনেক জুতায় আমদানি করা হয় যাতে নারীরা পছন্দ করে। রয়েছে বাচ্চাদের অনেক জুতা-স্যান্ডেলও। এই ঈদে ৩০০ টির’ও বেশি ডিজাইন নিয়ে এসেছে জীলস। 

আরএসএম বলেন, জীলসের রয়েছে বিশেষ স্পোর্টস জুতা। স্পোর্টস জুতাগুলো অন্য ব্র্যান্ডের জুতা থেকে দাম অনেক কম। স্পোর্টসের জুতা কম দাম হওয়ার কারণ হলো এগুলো আমরা নিজেদের কারখানায় তৈরি করি। জীলসে রয়েছে নিজস্ব ডিজাইনার, এ কারণে খুব সহজেই নতুন নতুন ডিজাইন তৈরি করা সম্ভব। 

জীলসের শুরুটা হয়েছিল ২০১২ সা্লে রাজধানী মিরপুরের মুক্ত বাংলা মার্কেট থেকে। এখন সারা বংলাদেশে জেলা ও বিভাগীয় শহরে রয়েছে জীলসের শো’রুম। এতো প্রতিযোগী ব্র্যান্ড থাকা সত্ত্বেও মূলত তিনটি কারণে ক্রেতারা জীলসের পণ্য কিনে। 
১. ডিজাইন
২. গুনগনত মান
৩. মূল্য

জীলসের স্লোগান হচ্ছে ‘কোয়ালিটিতে জিরো টলারেন্স’। গুণগত মানের দিক থেকে জীলস আপোষহীন। আগামীতে ১ বছরের গ্যারান্টিসহ জুতা ক্রেতাদের নিকট বিক্রি করা হবে বলে জানান আরএসএম । যা আমাদের দেশে নজিরবিহীন। 

তিনি আরও বলেন, জুতায় তৈরির অনেক ক্যামিকেল স্বাস্থ্যের জন্য হুমকিস্বরূপ। এই কারণে জীলস মানুষের স্বাস্থ্যের কথা চিন্তা করে স্বাস্থ্যেসম্মত জুতা নিয়ে আসছে আগামীতে ।

আর এই ঈদে ক্রেতাদের চিন্তাকে প্রাধান্য দিয়ে জীলস ফুটওয়্যার নেভার বি দ্য সেম ট্যাগলাইনে সাজিয়েছে তাদের কালেকশন। যেখানে সব বয়সীর জন্য ভিন্ন ভিন্ন ডিজাইনের জুতা তৈরি করা হয়েছে। সব ধরনের পোশাকের সঙ্গে মিলিয়ে পরা যাবে এসব জুতা।


 

ট্যাগ: banglanewspaper ঈদ