banglanewspaper

গাজীপুর প্রতিনিধি: গাজীপুরের শ্রীপুরে হা-মীম স্পিনিং লিমিটেড-এর দখলে থাকা বন বিভাগের আড়াই একর জায়গা উদ্ধার করে একাশি চারা রোপণ করেছে বন বিভাগ।এছাড়াও তাদের দখলকৃত জমির প্রাচীরের অংশ বিশেষ কেটে ভেতরে বন বিভাগের সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে দিয়েছে।

জানা যায়,উপজেলার তেলিহাটি ইউনিয়নের নয়নপুর মৌজায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে হা-মীম ডেনিম লিমিটেডের বিরোদ্ধে উক্ত বনের জমি দখলের অভিযোগ ছিলো দীর্ঘ দিনের।

শ্রীপুর ফরেস্ট রেঞ্জের শিমলাপাড়া বিট কর্মকর্তা এস.এম মোস্তাফিজুর রহমান জানান,সাইনবোর্ড স্থাপনের পরও দখলের শঙ্কা কাটছিলো না বন বিভাগের। এর আগেও প্রায় পাঁচ একর জায়গা দখল করে সেখানে বহুতল স্থাপনা করা হয়েছে। অবশ্য পাঁচ একর জায়গা দখলমুক্ত করতে বন বিভাগ ২০০৭ সনে আদালতে উচ্ছেদ মামলা দায়ের করেছেন। মামলা স্থায়ী নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত উভয় পক্ষকে ওই জায়গায় কোনো ধরনের কাজ এবং স্থাপনা নির্মান না করার জন্য নিষেধাজ্ঞাও রয়েছে আদালতের। মামলা চলমান থাকার পরও তারা স্থাপনা করার চেষ্ঠা করতে ছিল।

শ্রীপুর ফরেস্ট রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা মোজাম্মেল হোসেন জানান, শ্রীপুর উপজেলার ৪৯নং ধনুয়া মৌজার সি এস ১৯৫৯ ও ১৮৭৮ নং দাগে হা-মীম ডেনিম লিমিটেড গত প্রায় ১২ বছর আগে কৌশলে চার একর ৮০ শতক জায়গা জবর দখলের চেষ্টা করে। সেখানে তারা পাকা সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে। আদালতে এ নিয়ে উচ্ছেদ মামলা চলমান ও স্থায়ী নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও কারখানার লোকজন সেখানে স্থাপনা গড়ছেন।

রেঞ্জ কর্মকর্তা আরো জানান, বেশ কিছুদিন যাবত কৌশলে মাটি ভরাট করে আরও আড়াই একর জায়গা জবর দখলের চেষ্টা চালাচ্ছিল হা-মীম লিমিটেড। ৭ জুন বৃহস্পতিবার দুপুরে অধিক জনবল নিয়ে ওই আড়াই একর জায়গা উদ্ধার করে ৩০০০ চারা রোপণ করা হয়। দখল চেষ্টার ব্যাপারে আইনী প্রক্রিয়া চলমান। দখল ঝুঁকি ঠেকাতে বন বিভাগের কর্মীরা তৎপর রয়েছেন। পর্যায়ক্রমে দখলে থাকা সকল বনের জমি উদ্ধার করতে অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান তিনি।
 

ট্যাগ: banglanewspaper শ্রীপুর