banglanewspaper

‘আমার কাছে মনে হয়েছে এই ছেলেটি আমাকে বোঝে। আমরা একসঙ্গে সারা জীবন কাটাতে পারব’ দুই বছর আগে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা সাফায়াত আলীর সঙ্গে বিয়ের পর গণমাধ্যমকে এমনটিই বলেছিলেন নাদিয়া মিম। কিন্তু দুই বছর পর তাঁদের দুজনের পথ দুইদিকে বেঁকে গেছে।

শনিবার দুপুরে নিজেদের সংসার ভাঙার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নাদিয়া মিম।

সাফায়াত আলীর সঙ্গে নাদিয়া মিমের সংসারে বিচ্ছেদের মধ্য দিয়ে অভিনয়জগতে আরেকটি ভাঙনের খবর পাওয়া গেল। গত মে থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে আলাদা হয়ে গেছেন মিম ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা সাফায়াত আলী। ২০১৬ সালের ২৮ এপ্রিল বিয়ের কাজটি সেরে নেন নাদিয়া মিম। আর ৩০ এপ্রিল ছিল তাঁদের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান।

বিচ্ছেদের কারণ নিয়ে নাদিয়া বলেন, ওর বয়স ৩০ আমার ২১। আমাদের বয়সের বেশ বড় একটা গ্যাপ আছে। তাই প্রায়ই আমাদের মতের অমিল হতো। ঠিকঠাক বনিবনা হচ্ছিলো না। শেষমেশ এই ডিভোর্সের সিদ্ধান্ত নেওয়া।

ছয় মাস প্রেমের সম্পর্কের পর ২০১৬ সালের ২৮ এপ্রিল দুই পরিবারের সম্মতিতে নাদিয়া ও  সাফায়াতের বিয়ে হয়। সংসার জীবনের দুই বছর পার হতে না হতেই তাদের বিচ্ছেদ হয়ে গেলো। তবে সব ভুলে এখন আবার কাজে ব্যস্ত হতে চান নাদিয়া।

নাদিয়া মিম ২০১৪ সালে লাক্স-চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতার বিজয়ী। তখন থেকে তিনি অভিনয় শুরু করেন। পাশাপাশি করছিলেন উপস্থাপনাও। অল্প সময়েই তিনি পান দর্শকপ্রিয়তাও।

ট্যাগ: banglanewspaper সংসার