banglanewspaper

‘‌প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে হত্যার পরিকল্পনা করছে আরএসএস এবং কেন্দ্রীয় সড়ক পরিবহণমন্ত্রী নীতীন গড়কড়ি। আর সেই হত্যার দায় মুসলিমদের উপর চাপিয়ে তাদের গণপিটুনি দিয়ে মারার পরিকল্পনায় রয়েছেন।’‌

শনিবার রাতে জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী শহেলা রশিদের এই টুইট দবানালের মত ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। গড়কড়ির কাছে সেই টুইট পৌঁছতে বেশিক্ষণ সময় লাগেনি। রশিদের টুইটটি পাওয়া মাত্রই পাল্টা টুইট করে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী লিখেছেন,‘‌ব্যক্তিগত স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য যাঁরা এই ধরনের অপপ্রচার চালাচ্ছেন তাঁদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেব।’‌


গড়কড়ির টুইট হুমকি পাওয়ার পরেও থেমে যাননি শহেলা রশিদ। পাল্টা গড়কড়িকে উদ্দেশ্য করে টুইট করে তিনি লিখেছেন, একটা ভুয়ো টুইটেই দেশের অন্যতম বড় রাজনৈতিক দলের নেতা বিচলিত হয়ে পড়ছেন, তাহলে ভাবুন উমর খলিদ এবং তাঁর বাবাকে যখন অকারণে অপমানিত হতে হয় তখন তাঁদের কী অবস্থা হয়েছিল। তারপরে তিনি লিখেছেন ২০১৭–র ১৮ এপ্রিল পুণে পুলিসের হাতে মাওবাদীদের একটি চিঠি পৌঁছেছিল।

যাতে লেখা ছিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে রাজীব গান্ধীকে হত্যার ছকেই শেষ করতে হবে। সেই চিঠিতে সই ছিল মাওবাদী নেতা প্রকাশের। সেই চিঠিতে মোদীকে হত্যার পরিকল্পনাকে বলা হয়েছিল মোদি রাজের অবসান ঘটাতে হবে। 


খবরটি প্রকাশ্যে আসার পরে নড়েচড়ে বসেছিলেন তাবড় রাজনীতিকরা। কংগ্রেস নেতা সঞ্জয় নিরুপম দাবি করেছিলেন পুরোটাই ভুয়ো পরিকল্পনা। বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করা হচ্ছে। অন্যদিকে সিপিএম নেতা সীতারাম ইয়েচুরি উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছিলেন প্রধানমন্ত্রী বাড়তি নিরাপত্তা নেওয়া উচিত।

ট্যাগ: bdnewshour24 মোদিকে হত্যার পরিকল্পনা