banglanewspaper

কিম জং-উনের সঙ্গে দেখা করতে রাজী হওয়া ছাড়া অন্য কোনও বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্র কোনও কিছুতেই ছাড় দেয় নি বলে জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।
  
মঙ্গলবার সিঙ্গাপুরের স্যান্টোসা দ্বীপের একটি পাঁচ তারকা হোটেলে উত্তর কোরীয় নেতা কিম জং-উনের সঙ্গে বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এই তথ্য জানান।

ট্রাম্প বলেন, ‘শুধুমাত্র ট্রাম্পকে যারা অপছন্দ করেন, তারাই বলবেন যে আমরা অনেক বড় কোনও ছাড় দিয়েছি।’

তবে অনেক বিশ্লেষকই মনে করছেন যে যুক্তরাষ্ট্রের একজন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দ্বিপাক্ষীয় বৈঠক উত্তর কোরিয়ার জন্য কূটনৈতিক বিজয়।

দক্ষিণ কোরিয়ার সঙ্গে যৌথ সামরিক মহড়ার অবসান ঘটানোর ঘোষণা দিয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘কোরীয় উপদ্বীপের পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ প্রক্রিয়াকে নির্বিঘ্ন করতে ব্যয়বহুল ও খুবই উসকানিমূলক মহড়ার অবসান ঘটানো হবে।’

আমেরিকা ও দক্ষিণ কোরিয়া দীর্ঘদিন ধরে যৌথ সামরিক মহড়া চালিয়ে আসছে যা উত্তর কেরিয়াকে ক্ষুব্ধ করে তুলেছে। এ মহড়াকে উত্তর কোরিয়ার ওপর সামরিক আগ্রাসনের প্রস্তুতি হিসেবে দেখা হতো।

সংবাদ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প আরও বলেন, ‘যুদ্ধমহড়া অনেক ব্যয়বহুল। আমরা এর বেশিরভাগ ব্যয় বহন করতাম। বর্তমান পরিস্থিতিতে বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি। আমি মনে এ ধরনের সামরিক মহড়া চালানো ঠিক হবে না।’

ট্যাগ: banglanewspaper ট্রাম্প