banglanewspaper

শাফিউল কায়েস: গোপালগঞ্জে আসাদুজ্জামান টিটো শরীফকে হত্যার ঘটনায় ৩০ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে। টিটো শরীফের ভাই আশিকুজ্জামান শরীফ বাদি হয়ে সোমবার রাতে এ মামলাটি দায়ের করেন।

নড়াইল জেলার নড়াগাতি থানার ওসি আলমগীর হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করছেন।

১লা জুলাই (রোববার) দুপুরে গোপালগঞ্জ শহর থেকে ৫ কিঃ মিঃ দক্ষিণ পশ্চিমে নড়াইল জেলার নড়াগাতী থানার চরসিংগাতী গ্রামে ইটভাটার পাশের সড়কের উপর এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত আসাদুজ্জামান টিটো শরীফ (৪৪) শরীফ ব্রিকসের মালিক ও গোপালগঞ্জ শহরের পাচুড়িয়া এলাকার মো: আয়েজ উদ্দিন শরীফের ছেলে।তিনি ঠিকাদারী ও মাছ চাষসহ বিভিন্ন ব্যবসাও করতেন।

গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব আলী খান জানান,তিনি গোপালগঞ্জ শহর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ছিলেন।

মামলার বিবরণে বলা হয়, টিটো একটি মোটরসাইকেলে করে গোপালগঞ্জ-নড়াইলের সিমান্তবর্তী চরসিংগাতি গ্রামের ইটভাটা সংলগ্ন মাছের ঘের থেকে গোপালগঞ্জে ফিরছিলেন। পথে দুর্বৃত্তরা টেটা দিয়ে কুপিয়ে তাকে মোটরসাইকেল থেকে ফেলে দেয়।

হামলাকারীরা টিটোর ডান হাত কুপিয়ে শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলে। এরপর ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে ও গলাকেটে হত্যা করে মধুমতি নদীতে ফেলে পালিয়ে যায়।

ওসি আলমগীর হোসেনের সাথে মোবাইলে কথা হলে তিনি জানান, টিটো হত্যায় সন্দেহভাজন তিনজনকে সোমবার রাতে আটক করা হয়েছে। মামলার আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

এ ঘটনায় জড়িতদের গ্রেপ্তার ও দ্রুত বিচারের দাবি জানান আশিকুজ্জামান।

ট্যাগ: banglanewspaper গোপালগঞ্জ ইটভাটা