banglanewspaper

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি: পরীক্ষার ফি বৃদ্ধির প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা।পূর্বের থেকে ৫০০ টাকা ফি বৃদ্ধি করায় ছাত্রছাত্রীদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে কিছুদিন ধরেই।এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লেখালেখি শুরু হয় ফি বৃদ্ধির নোটিশ দেওয়ার পর থেকেই।

১লা জুলাই সকল বিভাগের নোটিশ বোর্ডে পরীক্ষার ফি বাড়ানোর নোটিশ টানিয়ে দেয়া হয়েছিলো।তারপর থেকে শিক্ষার্থীরা আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছিল।আজ সকাল সারে ১০ টায় তারা মানববন্ধন করে পরীক্ষার ফি বাড়ানোর প্রতিবাদ জানায়।

মানববন্ধব করার পর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও কয়েকজন প্রশাসনিক কর্মকর্তা ছাত্রদের সাথে মানববন্ধন ও অন্যান্য ২২ দফা দাবির ব্যাপারে কথা বলতে আসেন।কিন্তু তারা কোন সমাধান দিতে পারেনি।বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ দাবী মানার ব্যাপারে শিক্ষার্থীদের কাছে কিছুদিন সময় চাইলে শিক্ষার্থীরা সময় দেয়ার কথা প্রত্যাখ্যান করে অবস্থান কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ার কথা বলেন।

উল্লেখ্য, গত বছর জুলাই মাসের শেষ দিকে টানা ৯ দিন আন্দোলন করেছিলো ২২ দফা দাবী নিয়ে।শিক্ষার্থীরা সেমিস্টার ভর্তি ফি ২০০০ টাকা করা সহ বিশ্ববিদ্যালয় উন্নয়নমূলক আরও ২১ টি দাবী করেছিলো।তখন ২২ দফা দাবী মেনে নিয়ে লিখিত প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।প্রতিশ্রুতি দেয়ার প্রায় ১বছর পূর্ণ হলেও কোন দাবীই বাস্তবায়িত হয়নি।সেমিস্টার ফি কমানোর কথা ছিল কিন্তু ১লা জুলাই নোটিশ বোর্ডে ৫০০ টাকা বৃদ্ধির নোটিশ দেয়া হয়েছে।

শিক্ষার্থীরা এইবার আর মিথ্যা আশ্বাস নিয়ে ফিরতে নারাজ। তারা পুনরায় ২২ দফা দাবী নিয়ে আন্দোলনে নেমেছে।বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল গেট আটকে রাখা হয়েছে।ক্লাস পরীক্ষা বর্জন করে লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি পালন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।সেমিস্টার ভর্তি ফি ২০০ টাকা করে নোটিশ আকারে টানিয়ে দেওয়ার আগ পর্যন্ত তারা এই অবস্থান কর্মসূচি নিয়মিত চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেয়।

এছাড়া কোটা বিরোধী আন্দোলনকারীরা ক্যাম্পাস সংলগ্ন বরিশাল-কুয়াকাটা মহাসড়কে পতাকা মিছিল বের করে।উভয় আন্দোলনেই প্রথম থেকে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

ট্যাগ: banglanewspaper পরীক্ষা