banglanewspaper

থাইল্যান্ডের দক্ষিণাঞ্চলীয় ফুকেট দ্বীপে ঝড়ের কবলে পড়ে নৌকাডুবির ঘটনায় ৩৩ চীনা পর্যটক নিহত হয়েছেন। নিখোঁজ রয়েছেন ৩৫ পর্যটক। এ দুর্ঘটনায় আহত ১২ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কর্তপক্ষ জানায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ১৬ ফুট উচুঁ ঢেউয়ের ধাক্কায় নৌকাটি ডুবে যায়। নৌকাটিতে ৯৩ জন পর্যটক, একজন গাইড ও ১১ জন ক্রুসহ মোট ১০৫ জন ছিলেন। পর্যটকদের বেশিরভাগই ছুটি কাটাতে আসা চীনের নাগরিক।

দেশটির সরকারি সংবাদমাধ্যম সিনহুয়া জানায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকে থাই নৌবাহিনী, মেরিন পুলিশ ও স্থানীয় জেলেরা উদ্ধার কাজে অংশ নেন। কিন্তু রাত গভীর হলে উদ্ধার কাজ স্থগিত করা হয়। শুক্রবার সকাল থেকে হেলিকপ্টার, মাছ ধরার ট্রলার ও ডুবুরিরা নিখোঁজ পর্যটকদের সন্ধানে আবারও তৎপরতা শুরু করে।

পরে শুক্রবার সন্ধ্যায় উদ্ধার অভিযান স্থগিত ঘোষণা করা হয়। নিখোঁজদের সন্ধানে শনিবার ভোর পাঁচটায় পুনরায় অভিযান শুরু করা হবে।

ফুকেটের নৌ-পুলিশ এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এই ঘটনায় তদন্ত শুরু হয়েছে। নৌকাটি সঠিকভাবে নিবন্ধিত এবং যাত্রার সময়ও ধারণ ক্ষমতার চেয়ে বেশি যাত্রী নেয়া হয়নি বলে জানিয়েছে পুলিশ। উপকূলের সাত কিলোমিটার দূরে নৌকাটি ডুবে যায়।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র লু কাং বলেছেন, দেশটির প্রেসিডেন্ট শি জিন পিং এই ঘটনার ওপর গভীর দৃষ্টি রাখছেন। এছাড়া উদ্ধার তৎপরতায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন তিনি।

ট্যাগ: banglanewspaper থাইল্যান্ড