banglanewspaper

মেয়াদউত্তীর্ণ পাউরুটি দিয়ে ক্যানাপি তৈরি এবং কেক তৈরি করে নোংরা পেপারের উপর রাখায় রাজধানীর ধানমন্ডির ‘স্পাইসি রান্না রেস্টেুরেন্ট’কে ৮০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া আরও চারটি প্রতিষ্ঠানকে বিভিন্ন অভিযোগে জরিমানা করা হয়েছে।

ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক (উপ-সচিব) মনজুর মোহাম্মদ শাহরিয়ারের সার্বিক তত্ত্বাবধানে অভিযান পরিচালনা করেন ঢাকা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক আব্দুল জব্বার মন্ডল। অভিযানে সহায়তা করে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন এপিপিএন)।

সোমবার দুপুর ১টা থেকে সাড়ে ছয়টা পর্যন্ত ধনমন্ডিতে চলে এই অভিযান। অভিযান শেষে ঢাকা ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক আব্দুল জব্বার মন্ডল বলেন, ‘মেয়াদ উত্তীর্ণ পাউরুটি দিয়ে ক্যানাপি তৈরি করা হচ্ছিল। এছাড়া তারা কেক তৈরি করা অত্যন্ত নোংরা পেপারের উপর রেখে দিয়েছিল। রান্না করা মাংস কোনো র‌্যাপিং ছাড়া খোলাভাবে সরাসরি ফ্রিজে রাখা ছিল। তাদের খাবারে ব্যবহৃত বেশ কিছু বিদেশি মসলার গায়ে আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানের কোনো নাম ছিল না। এসব অভিযোগে ‘স্পাইসি রান্না রেস্টেুরেন্ট’কে ৮০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।’

এছাড়া কোমল পানীয় ও ফ্রেশ পানি বেশি দামে বিক্রির অভিযোগে ‘গার্লিক অ্যান্ড জিনজার’ এবং ‘ধাবা রেস্টুরেন্ট’ কে পৃথকভাবে ৫০ হাজার করে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। ‘আর ছালান রেস্টেুন্ট’ এ অপরিচ্ছন্ন পরিবেশে খাবার তৈরির অভিযোগে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

অভিযান দলটি নিউ ধানমন্ডি ৭ নম্বরে নিউ ভিশন ড্রিকিং ওয়াটার নামে পানির জারের (ফিল্টার) একটি কারখানায় অভিযান চালায়। সেখানে অভিযানে গিয়ে কোনো কেমিস্টের দেখা মেলেনি। তারা ওয়াসার পানি সরাসরি বোতলে ভরে দোকানে দোকানে সাপ্লাই করত। এসময় প্রতিষ্ঠানটির দায়িত্ববান কাউকে না পাওয়ায় তাদের ৬০টি পানির জার ধ্বংস করা হয়।

ট্যাগ: banglanewspaper ধানমন্ডি জরিমানা রেস্টুরেন্ট