banglanewspaper

মোহাম্মদ রনি খাঁ, গণ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধিঃ সাভারের গণস্বাস্থ্য সমাজ ভিত্তিক মেডিকেল কলেজের  শিক্ষানবিশ চিকিৎসকদের কর্মবিরতির অষ্টম দিনে টি.এম.ও এবং ইন্টার্ন চিকিৎসকদের বেতন বৃদ্ধি করাসহ অন্যান্য দাবিসমূহ মেনে নেওয়া  হয়েছে।

বুধবার আন্দোলনের অষ্টম দিনেও চিকিৎসকরা কর্মবিরতি পালন করে। দুপুরের পরে প্রশাসনের পক্ষ থেকে লিখিত ভাবে সকল দাবী মেনে নেওয়ার লিখিত প্রজ্ঞাপন জারি নিশ্চায়তা দিলে,  অবসান ঘটে  আটদিন ধরে চলে আসা চিকিৎসকদের কর্মবিরতির।

এসময় শিক্ষার্থীরা জানান, “হাসপাতালের আসা রোগীদের কথা চিন্তায় রেখে আমরা যত দ্রুত সম্ভব কাজে যোগদান করব।”

আন্দোলন কারীদের সাথে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের আলোচনায় সিদ্ধান্ত অনুযায়ী হাসপাতালে কর্মরত টিএমও’রা জুলাই ২০১৮ থেকে প্রত্যেক মাসে ২০০০০টাকা , ইন্টার্নগণ চিকিৎসকরা ১২০০০ টাকা করে বেতন পাবেন। এছাড়া যে সকল শিক্ষানবিশ চিকিৎসক গণস্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থাকবেন তাদের নিকট থেকে বিধি মোতাবেক থাকা-খাওয়ার খরচ বাবদ নির্দিষ্ট টাকা কেটে রাখা হবে এবং বেতনের টাকা প্রতি মাসের ১০ তারিখের মধ্যে প্রদান করা হবে।

কোন টিএমও যদি গণস্বাস্থ্য সমাজ ভিত্তিক হাসপাতালে কাজ না করে চলে যেতে চান তবে তাকে অব্যাহতি দেওয়া হবে এবং অব্যাহতির সময় তাকে টিএমও সার্টিফিকেট প্রদান করা হবে।

এছাড়া এখন থেকে পরবর্তিতে টিএমও প্রশিক্ষণ কাল ৬ মাস বাতিল করা হয়েছে। তবে সরকারী বিধি মোতাবেক ১২ মাস ইন্টার্নী প্রশিক্ষণ নিতে হবে।

বুধবার হাসপাতাল ঘুরে দেখা যায়, ১০৪ জন ইন্টার্ণ ও ৩২ জন ট্রেইনি মেডিকেল অফিসারদের অনেকে কাজে ফিরেছেন। বাকিরা রুটিন অনুযায়ী কাজে যোগদান করবেন বলে জানান।

উল্লেখ্য, গত ৪ জুলাই ২০১৮ থেকে টিএমও এবং ইন্টার্নশীপ চিকিৎসকগণ সকল টিএমও দের বেতন ২২ হাজার টাকা, ইন্টার্নশীপ বেতন ১৫ হাজার টাকা সহ ছয়টি দাবি নিয়ে আন্দোলন করে আসছিল। আন্দোলনের প্রেক্ষিতে গণস্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ এমন সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হন।

ট্যাগ: Banglanewspaper কর্মবিরতি গণস্বাস্থ্য হাসপাতাল