banglanewspaper

জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট প্রতিনিধি : লালমনিরহাটের উপর দিয়ে বয়ে যাওয়া শিলাবৃষ্টি ও কালবৈশাখী ঝড়ে প্রায় দেড় হাজার ঘরবাড়ী, গাছপালা ও বিভিন্ন ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ঝড়ে গৃহহারা হয়েছে প্রায় দেড় হাজার পরিবার। ঝরের কবলে পড়ে আহত হয়েছেন প্রায় ১৫জন, অনেকের গবাদী পশুও মারা গেছে। 


শুক্রবার রাত ১২টায় লালমনিরহাট পাঁচটি উপজেলা দিয়ে বয়ে যাওয়া এই শিলা বৃষ্টি ও ঝড়ে প্রায় ৩০টি ইউনিয়নের লোকজন ঘরবাড়ী হারিয়ে আশ্রয়হীন হয়ে পড়েছেন। সবচেয়ে বেশী ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে, লালমনিরহাট পৌরসভা, সদর উপজেলা, আদিতমারী ও কালীগঞ্জ উপজেলার কিছু অংশ।
ভূক্তভোগীরা জানায়, কোন কিছু বুঝে ওঠার আগেই দুমরে মুচরে যায় সহ¯্রাধিক ঘরবাড়ী। শিলাবৃষ্টিতে ভুট্রা, ধান, মরিচ, করলা, বেগুন, আম, লিচুসহ অন্তত পাঁচশ হেক্টর জমির ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়। শিলাবৃষ্টির আঘাতে ঘরের টিন ফুটো হয়ে যায়। একদিকে ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে, অন্যদিকে রাস্তায় গাছপালা ভেঙ্গে পড়ে ও বিদ্যুতের তার ছিরে পড়ায় গোটা জেলায় বন্ধ রয়েছে স্বাভাবিক বিদ্যুত সরবরাহ। এছাড়াও ঝরের কবলে পড়ে আহত হয়েছেন প্রায় ১৫জন, গবাদী পশুও মারা গেছে অনেকের। 
জেলা প্রশাসন আবুল ফয়েজ ম. আলাউদ্দিন খান জানিয়েছেন, প্রাথমিকভাবে ঝড়ে প্রায় অর্ধশত কোটি টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে। এছাড়াও ঝড়ে যেসব পরিবার ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে সরকারী ভাবে তাদের সাহায্যের জন্য ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

ট্যাগ: