banglanewspaper

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলায় রাকিবুল ইসলাম নামে এক ভূয়া চিকিৎসককে ১৮ মাসের কারাদন্ড ও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমান আদালত।

শুক্রবার বিকেলে নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) জে পি দেওয়ান ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে এ কারাদন্ড প্রদান করেন। রাকিবুল কুমিল্লা হোমনা উপজেলার নিলখী গ্রামের মোজ্জাফর আহম্মেদ ছেলে। 

ভ্রাম্যমান আদালত সূত্রে জানা গেছে, কিছুদিন আগে রাকিবুল ইসলাম নবীনগর উপজেলার সলিমগঞ্জ ইউনিয়নের অলিউর রহমান হাসপাতালে চাকরীর জন্য আসেন। এসময় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ রাকিবুলকে চিকিৎসকের প্রয়োজনীয় সনদ নিয়ে হাসপাতালে আসতে বলেন। শুক্রবার বিকেলে চিকিৎসকের কোনো কাগজপত্র না নিয়েই রাকিবুল হাসপাতালে আসেন। বিষয়টি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সন্দেহ হয়। পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে আটক করে উপজেলা প্রশাসনকে অবগত করেন। বিকেলে উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশে সহকারি কমিশনার (ভূমি) জে পি দেওয়ান ঘটনাস্থলে পৌছে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে রাকিবুলকে ১৮ মাসের কারাদন্ডসহ ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। 

উপজেলা সহকারী কমিশনার ও ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জে পি দেওয়ান জানান, আটককৃত ব্যক্তি ২০০৮ সালে এসএসসি পাশ করে বিভিন্ন অঞ্চলের বেসরকারি হাসপাতালে গিয়ে নিজেকে একজন চিকিৎসক হিসেবে পরিচয় দিয়ে আসছেন। তাই ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালানা করে তাকে শাস্তির আওতায় আনা হয়েছে।

ট্যাগ: banglanewspaper ব্রাহ্মণবাড়িয়া চিকিৎসক কারাদণ্ড