banglanewspaper

আমিনুল ইসলাম (হিমেল) মৌলভীবাজার: মৌলভীবাজারের বড়লেখায় আশ্রিত বাড়িতে অটোরিকশা চালক কর্তৃক দরিদ্র এক কিশোরী ধর্ষিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে নির্যাতিতা কিশোরীটি থানায় লিখিত অভিযোগ দিতে গেলে এলাকার প্রভাবশালী একটি মহল ঘটনাটি ধামাচাপ দিচ্ছে।

জানা যায় বড়লেখা উপজেলার কাঠালতলী টাকী গ্রামের নুর উদ্দিনের ছেলে অটোরিকশা (সিএনজি) চালক রুহুল আমিন গত সেমাবার রাতে মাধবগুল গ্রামের দরিদ্র কিশোরীর বাবা-মায়ের অনুপস্থিতিতে হত্যার হুমকি দিয়ে ধর্ষণ করে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

মঙ্গলবার রাতে ডাক্তারী পরীক্ষা শেষে নির্যাতিত কিশোরী রুহুল আমিনকে আসামী করে থানায় ধর্ষণ মামলা করতে গেলে প্রভাবশালী একটি মহল ঘটনা ধাপাচাপা দেয়ার চেষ্টা চালায় বলে ধর্ষিতার বাবা ছায়েফ আহমদ অভিযোগ করেন।

কিশোরীর বাবা ছায়েফ আহমদ বলেন, লম্পট রুহুল আমিনের ইভটিজিংয়ের কারণে দুই বছর আগে অষ্টম শ্রেণীতে পড়া অবস্থায় মেয়ের পড়াশুনা বন্ধ করতে বাধ্য হন। বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র এক ব্যক্তির বাড়িতে আশ্রিত হিসেবে বসবাস করেও মেয়ের সম্ভম রক্ষা করতে পারেননি।

ট্যাগ: Banglanewspaper মৌলভীবাজার অটোচালক ধর্ষণ স্কুল ছাত্রী