banglanewspaper

ঢাকায় এসেছেন ১৬তম মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট আর্ল মিলার। মার্শিয়া ব্লুম বার্নিকাটের মেয়াদ শেষ হওয়ায় গেল ১৩ অক্টোবর রবার্ট আর্ল মিলার তার পদে স্থলাভিষিক্ত হন।

রোববার বিকেলে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তিনি এসে পৌঁছান। এসময় ঢাকাস্থ মার্কিন দূতাবাসের কর্মকর্তারা তাকে স্বাগত জানান।

বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্টদূত মার্শা বার্নিকাটের মেয়াদ শেষ হওয়াতে তার জায়গায় নতুন রাষ্ট্রদূত হিসেবে আর্ল রবার্ট মিলারকে নিয়োগ দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গেল ১৭ জুলাই আর্ল রবার্ট মিলারকে ওই পদের জন্য মনোনীত করেন।

আফ্রিকার দেশ বতসোয়ানায় যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন মিলার। মিলার বতসোয়ানায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালনের আগে দক্ষিণ আফ্রিকার জোহানেসবার্গে মার্কিন কনস্যুলেটে কনসাল জেনারেল ছিলেন। 

তিনি যুক্তরাষ্ট্র সরকারের হয়ে ওয়াশিংটন, সান ফ্রান্সিসকো, মিয়ামি ও বোস্টনে কাজ করেছেন। এছাড়া ভারত, ইরাক, মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া ও এল সালভেদরের মার্কিন দূতাবাসে বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেছেন।

সাহস ও সাফল্যের সঙ্গে পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য রাষ্ট্রদূত আর্ল বরার্ট মিলার স্টেট ডিপার্টমেন্টের ‘হিরোইজম’সহ একাধিক পদক পেয়েছেন।

তিনি যুক্তরাষ্ট্রের মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক শেষে ইউনাইটেড স্টেট মেরিন কর্প কমান্ড এন্ড স্টাফ কলেজ থেকে শিক্ষা লাভ করেন। পরে তিনি মার্কিন মেরিন কোরে যোগ দেন। তিনি ১৯৮১ থেকে ১৯৮৪ সাল পর্যন্ত মেরিন কোরে এবং ১৯৮৫ থেকে ১৯৯২ পর্যন্ত মেরিন কোর রিজার্ভে অফিসার পদে ছিলেন। মিলার ইংরেজি ছাড়াও ফরাসি, স্প্যানিশ ও ইন্দোনেশীয় ভাষা জানেন।

ট্যাগ: bdnewshour24 রবার্ট মিলার রাষ্ট্রদূত