banglanewspaper

রাণীনগর (নওগাঁ) প্রতিনিধি: প্রধান শিক্ষক না হয়েও প্রধান শিক্ষক সেজে প্রশিক্ষনের জন্য নিউজিল্যান্ড  যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে নওগাঁর রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক আব্দুস সোবাহান মৃধার বিরুদ্ধে।

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক, পরিচালনা কমিটির সভাপতি (ইউএনও) ও মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে অবহিত না করে প্রতারণার মাধ্যমে অবৈধভাবে বিদেশ যাওয়ায় বিষয়টি নিয়ে সকল মহলে চলছে নানা আলোচনা।

বিষয়টি জানার পর রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালকসহ বিভিন্ন দপ্তরে তার বিরুদ্ধে করণীয় বিষয়ক একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ও অভিযোগে জানা গেছে, শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের সহকারী পরিচালক  (প্রোগ্রাম-১) ড. মীর জাহীদা নাজনীন’র সাক্ষরিত বৈদেশিক প্রশিক্ষন বিষয়ে তথ্য যাচাইকরন ও পাসপোর্ট ফরম পুরণের নির্দেশনা বিষয়ক সভায় যোগদান প্রসঙ্গে (১ম ব্যাচ, জিও নং-৯৭, নিউজিল্যান্ড) গত ১১ই মার্চ ২০১৯ইং তারিখে মাউশি/সেসিপ/এসপিএসইউ/২-৪৪৯/ ঝউ-২৮: বৈ.প্রশিক্ষন (পার্ট-২)/২০১৮/৩৫০২ নং স্মারকে সেকেনন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রাম (সেসিপ) এর আওতায় প্রতিষ্ঠিত আইসিটি লার্নিং সেন্টারসমূহের প্রতিষ্টান প্রধানগনকে (অধ্যক্ষ/প্রধানশিক্ষক/সুপার) নিউজিল্যান্ডে বৈদেশিক প্রশিক্ষনের লক্ষ্যে সরকারি আদেশ জারি করা হয়। 

এর আলোকে রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক (ইসলাম ধর্ম) আব্দুস সোবাহান মৃধা কাউকে না জানিয়ে জালিয়াতি করে নিজেকে প্রধান শিক্ষক সেজে প্রশিক্ষণের জন্যে নিউজল্যান্ড যান।

তবে এ বিষয়ে বিদ্যালয়ের সভাপতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আল মামুন, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুল জলিল, ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোরশেদা বানুসহ কাউকে না জানিয়ে এমনকি প্রতিষ্ঠান থেকে ছুটি ও প্রত্যয়ন নেয়নি শিক্ষক আব্দুস সোবাহান মৃধা। গত ২৩ এপ্রিল ২০১৯ইং তারিখ থেকে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত হওয়াই তথ্যানুসন্ধানে বিষয়টি জানতে পারে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক বর্তমান থাকা অবস্থায় একজন সহকারি শিক্ষক সকলের চোখে ধূলো দিয়ে জালিয়াতি করে অবৈধভাবে নিউজিল্যান্ড যাওয়ার বিষয়টি জানাজানি হওয়ার পর থেকে বিদ্যালয়সহ বিভিন্ন মহলে এনিয়ে চলছে নানান আলোচনা। গত ০৫ এপ্রিল ২০১৮ইং তারিখ হইতে বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক হিসেবে দায়িত্বে পালন করছেন মোরশেদা বানু।

বিষয়টি জানা জানি হলে রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক বাংলাদেশ মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ও সদয় অবগতির জন্য প্রোগ্রাম পরিচালক, সেসিপ ও মহাপরিচালক, রাজশাহী মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা উপ-পরিচালক, নওগাঁ জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা, রাণীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বরাবর তার বিরুদ্ধে করণীয় বিষয়ক একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মোরশেদা বানু জানান, নিউজিল্যান্ডে প্রশিক্ষনের বিষয়ে আমরা কিছুই জানিনা বা আমার উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে কোন চিঠিও পাইনি। হঠাৎ করে গত ২৩ এপ্রিল থেকে সহকারি শিক্ষক আব্দুস সোবাহান মৃধা বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থাকায় তার বিষয়ে খোঁজ খবর নিলে তার সরকারি বৈদেশিক প্রশিক্ষণ গ্রহনের জন্য নিউজিল্যান্ডে যাওয়ার বিষয়টি প্রকাশ পায়।

তিনি কাউকে কিছু না জানিয়ে ও বিদ্যালয় থেকে কোন প্রকার ছুটি বা প্রত্যয়ন না নিয়ে অবৈধভাবে নিইজিল্যান্ডে যাওয়া এবং তার বিরুদ্ধে করণীয় বিষয়ে আমি লিখিত অভিযোগের মাধ্যমে সকল উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। আশা করছি কর্তৃপক্ষ অবশ্যই তার ব্যবস্থা গ্রহন করবেন।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুল জলিল বলেন, বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক আব্দুস সোবাহান মৃধা সরকারি বৈদেশিক প্রশিক্ষন গ্রহনের জন্য নিউজিল্যান্ডে যাওয়ার বিষয়ে আমাকে কিছু বলেনি। সে অবশ্যই জালিয়তি করে বিদেশ গেছেন, দেশে ফিরে আসার পর তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

রাণীনগর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির সভাপতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আল মামুন বলেন, সহকারি শিক্ষক আব্দুস সোবাহান মৃধা সরকারি বৈদেশিক প্রশিক্ষন গ্রহনের জন্য নিউজিল্যান্ডে যাওয়ার বিষয়ে আমাকে কোন কিছু জানায়নি। সে  প্রধান শিক্ষক সেজে জালিয়াতি করে নিউজিল্যান্ডে গেছেন। সে দেশে ফিরে আসার পর তার বিরুদ্ধে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

ট্যাগ: bdnewshour24 প্রধান শিক্ষক