banglanewspaper

কাজী আশরাফ, নড়াইল: নড়াইলের লোহাগড়ায় মাত্র সাত দিনের ব্যবধানে আবারও সড়ক দুর্ঘটনার শিকার দুই মোটরসাইকেলের ৫ আরোহী।

রবিবার (৫ জানুয়ারী) দুপুরে কালনা-নড়াইল মহাসড়কের আলামুন্সীর ইটভাটা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, গোপলগঞ্জ জেলার কাশিয়ানি উপজেলার তাইল গ্রামের রুমেন (৩০), যশোর জেলার মনিরামপুর উপজেলার কাশিপুর গ্রামের মেহেদী (২৮), বাঘারপাড়া উপজেলার ভিটাবল্লা গ্রামের মুজিবর, নড়াইল সদর উপজেলার কাজী সাইদুর রহমানের ছেলে কাজী আশরাফ।

এ ঘটনায় রুমেন (৩০) নামের একজনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায় কালনা ঘাট থেকে নড়াইলগামী একটি মটরসাইকেল বিপরিত দিক থেকে আসা বেপরোয়া গতির তিনচাকার ট্রলিকে সাইড দিতে গেলে অপর দিক থেকে আসা একটি মোটরসাইকেলের সাথে সংর্ঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় দুইটি মোটরসাইকেলে থাকা চালকসহ মোট পাঁচজন গুরুতর আহত হয়। আহতদের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন লোহাগড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক। পরে যশোর নেওয়ার পথে রুমেন (৩০) নামের এক জন মারা যায়। এ ঘটনায় পুলিশ দুইটি মোটরসাইকেল ও তিন চাকার ট্রলিটি জব্দ করে।   

বিভিন্ন সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যে জানাযায়, কালনা-নড়াইল মহা-সড়কে সম্প্রতি তিন চাকার অবৈধ বাহন বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। অদক্ষ চালক দারা চালিত বেপরোয়াগতির বাহনের কারনে প্রাই সড়কে প্রাণ দিতে হচ্ছে পথচারীসহ স্কুল-কলেজ পড়–য়া শিক্ষার্থীদের। প্রতিনিয়ত একই ঘটনার পুনঃবৃত্তি হলেও প্রশাসনের পক্ষ থেকে সড়কে তিন চাকার বাহন বন্ধে তেমন কোন পদক্ষেপ নিতে দেখা যায় নি। 

উল্লেখ্য, গত ২৯ ডিসেম্বর উপজেলার দিঘলিয়া ইউনিয়নের খালচর নামক স্থানে বেপরোয়া তিন চাকার বাহন ও মোটরসাইকেলের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ দিতে হয় ৯ বছর বয়সের নয়ন শেখকে। ওই ঘটনায় আরও দুই জন পঙ্গুত্ব বরন করে।

লোহাগড়া থানা পুলিশ ঘটনার সত্যতা স্বাীকার করে জানান, এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 নড়াইল লোহাগড়া