banglanewspaper

আলফাজ সরকার আকাশ, শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধিঃ জানাজার নামাজ শুরু হতে কিছু সময় বাকি। আগত কয়েক হাজার মুসল্লীরা কাতারবন্দি রয়েছেন। কলেজ চত্বরের পশ্চিম পাশে একটি খাটের ওপর কফিনে রাখা ছিল "একটি বাড়ি একটি খামার" প্রকল্পের প্রবক্তা, গাজীপুর-৩ আসনের সাবেক সাংসদ, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. রহমত আলীর মরদেহ।

জানাজায় উপস্থিতি প্রমানে বেশির ভাগই যখন সেলফি ও আলাপচারিতায় ব্যস্ত ঠিক তখনই কফিনের উত্তর পাশে অঝোরে চোখের পানি ছেড়ে কাঁদছিল একটি শিশু। 

১৮ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার বিকেলে শ্রীপুর বীর মুক্তিযোদ্ধা রহমত আলী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ চত্বরে অনুষ্ঠিত জানায় এ ঘটনা ঘটে। 

তবে, তাৎক্ষনিক ভাবে শিশুটির পরিচয় নিশ্চিত করা করা যায়নি।

সরেজমিনে দেখা যায়, যখন লাশবাহী এম্বুলেন্স মাঠে প্রবেশ করছিল ঠিক সেসময় পিছনে পিছনে দৌড়ে আসছিল শিশুটি। জানাজার নামাজ পড়তে আসা হাজারো মানুষের ভীর ঠেলে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় সম্মান প্রদর্শন করার স্থানে এগিয়ে আসে সে । জানাজায় উপস্থিত অতিথিরা যখন এড.রহমত আলীর রাজনৈতিক কর্মকান্ডের বিষয়ে স্মৃতিচারণ করছিলেন তখন খাটের ওপর কফিনে রাখা লাশের এক কোনে দাঁড়িয়ে কাঁদতে কাঁদতে কি যেন বলছিল ওই শিশুটি।

তবে, মাইকের আওয়াজের ফাকে আন্দাজ করা হচ্ছিল যে, শিশুটি এ সময় তার দু-হাত তুলে আল্লাহ, আল্লাহ বলছিল আর কাঁদতে ছিল। আশপাশের কয়েকজন তার কান্না থামানোর চেষ্টা করতে দেখা যায় । তবে, সাংসদ পরিবারের সঙ্গে শিশুটির কোন সম্পর্ক রয়েছে কিনা সে বিষয়ে কেউ নিশ্চিত হতে পারেনি। 

উল্লেখ, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি রবিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। দীর্ঘদিন ধরে তিনি ডায়াবেটিস ও কিডনি রোগে ভুগছিলেন বলে জানিয়েছেন তার-ই মেয়ে ও একাদশ জাতীয় সংসদের ১৪নং সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য অধ্যাপিকা রুমানা আলী টুসী। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭৫ বছর।

বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. রহমত আলী  বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘনিষ্ঠ সহচর ছিলেন এবং গাজীপুর-৩ (শ্রীপুর-ভাওয়ালগড়-পিরুজালী-মির্জাপুর) আসন থেকে ১৯৯১ সাল থেকে দশম সংসদ পর্যন্ত পাঁচবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। এছাড়াও গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি ।

ট্যাগ: bdnewshour24 সাবেক সাংসদ রহমত আলী জানাজা কফিন