banglanewspaper

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার আমান উল্যাহপুর ইউনিয়নে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নজরুল ইসলাম প্রকাশ নামে ২৫ বছর বয়সী এক যুবক নিহত হয়েছেন। যিনি শিবির কর্মী ও ছাত্রলীগ নেতা রাকিব হত্যা মামলার আসামি বলে দাবি করছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীটি। আহত হয়েছেন পুলিশের ছয় সদস্য।

মঙ্গলবার ভোর পৌনে চারটার দিকে জনকল্যাণ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এই বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

নিহত নজরুল অভিরামপুর এলাকার আব্দুল হাকিমের ছেলে। তিনি শিবির ক্যাডার পিয়াস বাহিনীর সেকেন্ড ইন কমান্ড ও শিবিরের একজন কর্মী বলে জানিয়েছে পুলিশ। 

পুলিশ জানায়, ছাত্রলীগ নেতা রাকিব হত্যার ঘটনায় করা মামলায় অভিযুক্ত আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য আমান উল্যাহপুর ইউনিয়নের বিভিন্নস্থানে যৌথ অভিযান চালায় বেগমগঞ্জ থানা ও ডিবি পুলিশ। অভিযানকালে পুলিশের একটি দল জনকল্যাণ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে গেলে শিবির ক্যাডার পিয়াস বাহিনীর সদস্যরা পুলিশের ওপর হামলা ও এলোপাথাড়ি গুলি ছোঁড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোঁড়ে।

বন্দুকযুদ্ধে নজরুল গুলিবিদ্ধ ও ছয় পুলিশ সদস্য আহত হয়। ঘটনাস্থল থেকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় নজরুলকে উদ্ধার করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বেগমগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুন অর রশিদ চৌধুরী জানান, শিবির ক্যাডাররা পুলিশের ওপর হামলা ও গুলিবর্ষণ করলে আত্মরক্ষার্থে পুলিশও ৪৪ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ছোঁড়ে। ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি পিস্তল, তিন রাউন্ড গুলি, একটি ধামা, তিনটি ছোরা ও পাঁচটি কার্তুজের খোসা উদ্ধার করা হয়েছে। নিহত নজরুল শিবিরের একজন ক্যাডার। তার বিরুদ্ধে রাকিব হত্যাসহ একাধিক মামলা রয়েছে। 

ওসি আরও জানান, ছাত্রলীগ নেতা রাকিব হত্যার ঘটনায় তার মা শিরিন আক্তার বাদী হয়ে ২৫ জনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাত নামা একাধিক আসামি করে একটি মামলা করেছেন। অভিযুক্ত আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 শিবির বন্দুকযুদ্ধ ছাত্রলীগ