banglanewspaper

অলিউর রহমান মেরাজ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : দিনাজপুরের হিলিতে পুলিশ পরিচয়ে চাঁদাবাজি ও টাকা নিয়ে আসামী ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগে শাহাদৎ হোসেন (৩৫) নামের এক এএসআইকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

১লা মার্চ সোমবার দিবাগত রাতে বগুড়া সদর থানা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সে রাজশাহীর বাগমারা গ্রামের আকরাম হোসেনের ছেলে। সে ৪ এপিবিএন নিশিন্দারা বগুড়ার এএসআই পদে কর্মরত ছিলেন। ওই ঘটনায় আরো কয়েকজন সদস্য জড়িত ছিল।

হাকিমপুর থানার ওসি আব্দুর রাজ্জাক আকন্দ জানান, গত ১লা মার্চ বিকেলের দিকে হিলির চকচকা গ্রামে কতিপয় ব্যক্তি মুহাড়াপাড়া গ্রামের আরমান আলীকে আটক করে এবং তার নিকট চাঁদা দাবী করে। একপর্যায়ে তাকে মারপিট করে ও ভয়ভীতি দেখায়, পরে তাদের কথামতো রাজি হয়ে আরমানের স্ত্রী তাদের দেওয়া বিকাশ নাম্বারে দশ হাজার টাকা প্রদান করেন।

এর পরে টাকা পেয়ে আসামীরা আরমান আলীকে ছেড়ে দিয়ে চলে যায়। পরে বিষয়টি নিয়ে গতকাল হাকিমপুর থানায় আরমান আলীর স্ত্রী তারামন বিবি মামলা দায়ের করেন। পরে সেই অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশের একটি টিম গতকাল রাতে বগুড়ায় অভিযান চালিয়ে সেই বিকাশ নাম্বারের মালিককে আটক করে। পরে তার দেওয়া তথ্যমতে শাহাদৎ হোসেন নামের পুলিশের এএসআই কে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে আজ মঙ্গলবার দুপুরে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 পুলিশ পরিচয় চাঁদাবাজি