banglanewspaper

নড়াইল প্রতিনিধি: নড়াইলে একাধিক মাদক মামলার আসামি উজ্জ্বল রায়কে (৪৮) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার (১১ মার্চ) রাত সোয়া ১টার দিকে নড়াইল শহরের ভওয়াখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। উজ্জ্বলের বিরুদ্ধে নড়াইল সদর ও যশোর থানায় একাধিক মাদক মামলা রয়েছে। এর আগে ফেনসিডিলসহ পুলিশের হাতে  একাধিকবার গ্রেফতার হলেও জামিন পেয়ে আবারো মাদক বেচাকেনায় জড়িয়ে পড়ে বলে অভিযোগ রয়েছে।  

সদর থানার ওসি ইলিয়াস হোসেন পিপিএম বলেন, উজ্জ্বল রায়ের নামে নড়াইল ও যশোরে একাধিক মাদক মামলা আছে। দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর বুধবার গভীর রাতে তার বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। বৃহস্পতিবার বিকেলে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশসহ বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, উজ্জ্বল রায় প্রায় দুই যুগ ধরে ফেনসিডিল বেচাকেনার সঙ্গে জড়িত। শহরের রূপগঞ্জ এলাকায় পুরাতন হারমোনিয়াম সংস্কারের আড়ালে মাদক বিক্রিই তার মূল উদ্দেশ্য। একাধিবার পুলিশের হাতে আটক হয়েছে।

সর্বশেষ ২০১৯ সালের ৫ আগস্ট রাত সাড়ে ১০টার দিকে উজ্জ্বল রায়ের বাড়িতে অভিযান চালান নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা। উজ্জ্বল রায়কে বাড়িতে পাওয়া না গেলেও তার স্ত্রী দিপালি রায়কে ১২ বোতল ফেনসিডিল, প্রায় ১০০গ্রাম গাঁজা ছাড়াও মাদকদ্রব্য সেবনের উপকরণসহ আটক করা হয়। এ সময় ঘরের বিভিন্ন স্থানে লুকিয়ে রাখা মাদক বিক্রির ১৮ লাখ ৭০ হাজার ৬২৯ টাকা উদ্ধার করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। 

এদিকে অবৈধভাবে মাদক রাখার দায়ে উজ্জ্বলের স্ত্রী দিপালি রায়কে পরের দিন (৬ আগস্ট) তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড, ৫০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে আরো এক মাসের কারাদন্ড দেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। 

বিভিন্ন পেশার মানুষ জানান, মাদক কারবারির কাজে অনৈতিক সুবিধা পেতে উজ্জ্বল রায় প্রায় ১০ বছর ধরে অন্তত ৩০টি অখ্যাত পত্রিকা ও অনলাইন নিউজ পোর্টালে ‘নড়াইল প্রতিনিধি’ হিসেবে কাজ করে আসছিল। পাশাপাশি শহরের মুচিরপোল এলাকায় হারমোনিয়াম সংস্কারের কাজ করত।

ট্যাগ: bdnewshour24 মাদক বেচাকেনা