banglanewspaper

ভয়াবহ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হতে শুরু করেছেন তারকারাও। এ তালিকা ক্রমেই দীর্ঘ হচ্ছে। ইতিমধ্যে হলিউডের খ্যাতিমান অভিনয়শিল্পী টম হ্যাঙ্কস, রিতা উইলসন, ইদ্রিস এলবা, ওলগা কুরিলেঙ্কো, র‍্যাচেল ম্যাথিউস, ইন্দিরা ভার্মা ও ক্রিস্টোফার হিভজুরা এ তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন। এবার জানা গেল, করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ভারতের জনপ্রিয় শিল্পী ‘বেবি ডল’খ্যাত কণিকা কাপুর।

দিন কয়েক আগেই ইংল্যান্ড থেকে ভারতে ফিরেছেন কণিকা। শোনা যাচ্ছে, তিনি যে লন্ডন থেকে ঘুরে এসেছেন, সে তথ্য গোপন করেছিলেন। ভারতে ফিরেই লক্ষ্ণৌতে পারিবারিক একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেন তিনি। বন্ধু ও নিকট আত্মীয়দের নিয়ে ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিলেন তিনি নিজেই। সেখানে যোগ দিয়েছিলেন বহু আমলা, রাজনীতিক এবং সুধীজনেরা।

এ ঘটনা জানার পর কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়েছেন মেডিকেল অফিসাররা। কণিকা যেখানে থাকেন, সেই ভবন কোয়ারেন্টিন করা যাবে, কিন্তু কণিকার পার্টিতে যোগ দেওয়া ভিআইপিদের কীভাবে পরীক্ষা করবেন, ভেবেই পাচ্ছেন না তাঁরা। কিং জর্জেস মেডিকেল ইউনিভার্সিটির চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, কিছু লোক আমাদের কাছে পরীক্ষার জন্য আসছে, কিন্তু বুঝতে পারছি না, যে ভিআইপিরা ওই অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন, তাঁদের কীভাবে পরীক্ষা করব।রটেছে, লন্ডন থেকে ফেরার তথ্য গোপন করেছিলেন কণিকা।

কণিকা ইনস্টাগ্রামে লিখেছেন, ‘গত চার দিন সর্দিতে ভোগার পর পরীক্ষা করিয়ে দেখি, আমি কোভিড-১৯-এ আক্রান্ত। আমি ও আমার পুরো পরিবার কোয়ারেন্টিনে আছি এবং চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে চলছি। এ ছাড়া যাঁদের স্পর্শ করেছি, তাঁদের তালিকা করার চেষ্টা করছি। দশ দিন আগে লন্ডন থেকে ফেরার পর বিমানবন্দরে আমাকে স্বাভাবিকভাবে পরীক্ষা করা হয়েছিল। যদিও লক্ষণ প্রকাশিত হয়েছে চার দিন আগে। এই অবস্থায় সবাইকে অনুরোধ করব, স্বেচ্ছায় আইসোলেশনে থাকুন, সন্দেহ হলে পরীক্ষা করান। আমি এখন একটু ভালো আছি, সাধারণ সর্দি হলে যেমন হয়, সে রকম লাগছে। সামান্য জ্বরও আছে। আমাদের এখন থেকে সচেতন হতে হবে এবং চারপাশের সবার কথা ভাবতে হবে। রাজ্য সরকার, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এবং বিশেষজ্ঞদের কথামতো আমাদের ভীত হওয়া চলবে না। সবার সুস্বাস্থ্য কামনা করি।

কণিকার পুরো পরিবারকে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে। অন্যদিকে লক্ষ্ণৌর যে হোটেলে কণিকাদের অনুষ্ঠানটি হয়েছিল, সেখানকার কর্মী ও অতিথিরা ভয়ে আছেন। বলিউডে গানে কণিকা এক প্রিয় নাম। সানি লিওন অভিনীত ‘রাগিনি এমএমএস টু’ ছবিতে তাঁর গাওয়া ‘বেবি ডল’ গানটি ব্যাপকভাবে সমাদৃত হয় সারা পৃথিবীতে। বলা যায়, এ গানে অভিনয় ও ঠোঁট মেলানোর সুবাদে নতুন করে জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন সানি লিওন। এ ছাড়া বাংলাদেশের আলোচিত নায়িকা পরীমনি অভিনীত ‘রক্ত’ ছবিতে তাঁর গাওয়া ‘ডানা কাটা পরী’ গানটি ভীষণভাবে জনপ্রিয় হয়। সূত্র: ইন্ডিয়া টাইমস

ট্যাগ: bdnewshour24 করোনা