banglanewspaper

‘মিশন ইম্পসিবল’ হোক কিংবা ‘নাইট অ্যান্ড ডে’, হলিউডে মারকাটারি অ্যাকশন ও দুর্দান্ত স্টান্টের জন্য জনপ্রিয় টম ক্রুজ। বয়সটা তার কাছে সংখ্যা মাত্র। তাই তার অভিনীত যে কোনও ছবিতে স্টান্টটা নিজেই করেন। 

টমের যে কোনও ছবির মূল ইউএসপি হল বিপজ্জনক স্টান্ট। এবার সেই পথেই আরও একটু এগিয়ে রেকর্ড গড়তে চলেছেন টম। বেশকিছুদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল টম ক্রুজ নাকি তার আগামী ছবির শ্যুটিং–এর জন্য প্লট হিসাবে মহাকাশকেই বেছে নিয়েছেন। 

অর্থাৎ কোনও স্টুডিও কিংবা আর্টিফিশিয়াল গ্যালারি কিংবা ভিএফএক্স–এর সাহায্যে নিয়ে নয়। একটি আস্ত ছবির শ্যুটিং করবেন মহাকাশে গিয়ে।

বুধবারই সেই বিষয়ের সত্যতা জানিয়েছে নাসা কর্তৃপক্ষ। টম মহাকাশে শ্যুটিংয়ের ব্যাপারে নাসা’র সঙ্গে এক প্রস্থ আলোচনাও সেরেছেন বলে জানা গিয়েছে। তবে কোন ছবির শ্যুটিং কিংবা কতজন স্টাফ নিয়ে কাজটি হবে সেই বিষয়ে কিছুই জানাননি হলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা।

এলোন মাস্ক নামে একজন ব্যাক্তির সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়ে এই ছবির কাজ করবেন টম। তবে অভিনেতা নিজে এই ছবির প্রযোজনা করলেও হলিউড থেকে আর কোনও প্রযোজক এগিয়ে আসবেন কিনা সেই বিষয়ে বেশ সন্দেহ রয়েছে। 

কারণ মহাকাশে শ্যুটিং হলে ছবির বাজেট বিশাল অঙ্কে পৌঁছাবে যা প্রযোজকদের মাথা ব্যথার কারণ হতে পারে। তাছাড়া এর সঙ্গে জড়িত বিপদের মাত্রাটিও অত্যন্ত বেশি। যদিও সব কিছুই এখনও পর্যন্ত আলোচনার স্তরে রয়েছে বলেই জানা গিয়েছে।

এলোন মাস্ক–এর সংস্থা ‘স্পেস এক্স’ নাসার সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েই এই ছবির কাজ করবেন বলে জানা গিয়েছে। ৫৮ বছর বয়সি টমের ‘মিশন ইম্পসিবল’ সিরিজ গোটা বিশ্বেই চর্চিত। এই ছবির সপ্তম ও অষ্টম পর্বের শ্যুটিং নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন টম। 

কিন্তু করোনা ভাইরাস প্রকোপের কথা মাথায় রেখেই বেশ কিছুদিন পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে এই ছবির শ্যুটিং। অপরদিকে তার অভিনীত ‘টপ গান ম্যাভেরিক” ছবির মুক্তি পাওয়ার কথা চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসে। কিন্তু সংক্রমণ পরিস্থিত ঠিক না হলে সেই ছবির মুক্তিও পিছিয়ে যেতে পারে আগামী বছরে।

ট্যাগ: bdnewshour24