banglanewspaper

মঙ্গলবার রাশিয়ার সেন্ট পিটার্সবার্গের সেন্ট জর্জ হাসপাতালে আগুন লাগায় ছড়ায় তীব্র আতঙ্ক। ঘটনায় ভেন্টিলেশনে থাকা পাঁচ করোনা আক্রান্তের মৃত্যুও হয়। যে ঘটনায় এবার অপরাধমূলক তদন্ত শুরু হয়েছে।

রাশিয়ায় রীতিমতো দাপট দেখাচ্ছে নোভেল করোনা ভাইরাস। হু হু করে বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। এমন পরিস্থিতিতে হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ছড়ায় চাঞ্চল্য। 

প্রাণ হারান ভর্তি থাকা পাঁচ করোনা রোগী। যাদের মধ্যে চারজন ছিলেন একই ওয়ার্ডের। অন্য একজন ভর্তি ছিলেন পাশে ওয়ার্ডে। যে ওয়ার্ডে আগুন লাগে, সেখান থেকে ১০০ জনেরও বেশি রোগীকে নিরাপদে সরিয়ে আনা হয়। 

কিন্তু পাশের ওয়ার্ডের রোগীর কীভাবে মৃত্যু হল, সেই নিয়েই ধোঁয়াশায় পুলিশ। আর সেই কারণেই পঞ্চম রোগীর মৃত্যুর কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

আগুন আরও ভয়াবহ আকার ধারণ করার আগেই অবশ্য তা নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়। তবে ঠিক কীভাবে আগুন লাগল তা নিশ্চিত করে এখনও বলা হয়নি। তবে প্রাথমিক অনুমান, ভেন্টিলেটর অতিরিক্ত গরম হয়ে যাওয়ার কারণেই আগুন লাগে। 

মাত্রাতিরিক্ত গরম হয়ে যাওয়ার জন্যই তা অগ্নিকাণ্ডের কারণ হয়ে ওঠে। রাশিয়ার একটি এজেন্সির দাবি, সেই দেশের কারখানাতেই ভেন্টিলেটরগুলি তৈরি হয়েছে। যা এক অর্থে ত্রুটিপূর্ণ বলেই মনে করা হচ্ছে। যদিও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এ বিষয়ে কোনও মন্তব্য করেনি।

উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগেই মস্কোর একটি হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। সেখানেও করোনা রোগীরা ভরতি ছিলেন। আগুনের গ্রাসে প্রাণ হারান একজন। সেখানেও আগুন লাগার কারণ হিসেবে সামনে আসে ত্রুটিপূর্ণ ভেন্টিলেটরের উপস্থিতি। এবারও প্রায় একই ঘটনা ঘটল সেন্ট পিটার্সবার্গে। 

ট্যাগ: bdnewshour24