banglanewspaper

বাংলাদেশের দিকে ধেয়ে আসছে প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘আম্পান’। সময়ের সঙ্গে এটি ভয়ঙ্কর রূপ ধারণ করছে। সুপার সাইক্লোনে রুপ নেয়া ঘূর্ণিঝড় আম্পানের কারণে বুধবার সকাল ৬টায় মহাবিপদ সংকেত দেখানো হবে।

মঙ্গরবার (১৯ মে) বিকেলে ভিডিও কনফারেন্স যুক্ত হয়ে সংবাদ সম্মেলনে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী এনামুর রহমান এ কথা জানান।

মো. এনামুর রহমান বলেন, আজ রাতের মধ্যে সবাইকে আশ্রয় কেন্দ্রে আনা হবে। বুধবার সকাল ৬টায় বাংলাদেশের উপকূল দিয়ে ঘূর্ণিঝড়টি প্রবেশ করবে। আমরা সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছি। কোন জেলায় কতজনকে আশ্রয় কেন্দ্রে নেওয়া হয়েছে তার জন্য কন্ট্রোল রুম থেকে জানছি। রাত ৮টার মধ্যে সবাইকে আশ্রয় কেন্দ্রে নিয়ে আসা সম্ভব হবে বলে আশা করেন প্রতিমন্ত্রী।

এদিকে আবওহাওয়া অধিদপ্তরের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, সুপার সাইক্লোন আম্পান উত্তর উত্তরপূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে খুলনা ও চট্টগ্রামের মধ্যবর্তী অঞ্চল দিয়ে কাল (বুধবার) ভোররাত থেকে বিকেল বা সন্ধ্যার মধ্যে বাংলাদেশ উপকূল অতিক্রম করতে পারে।

আবহওয়াবিদ বজলুর রশিদ গণমাধ্যমকে জানান, বাংলাদেশ ও ভারত সীমান্তের সুন্দরবন অংশে ঘূর্ণিঝড়টির মূল অংশ আঘাত হানতে পারে। ঝড়ের মূল অংশ সুন্দরবন অংশে এলেও এর প্রভাব পড়বে চারদিকেই।

ইতোমধ্যেই আম্পানের প্রভাব শুরু হয়েছে। দুপুর পর্যন্ত আবহাওয়া ভালো থাকলেও বিকেলে দিকে আকাশ মেঘাচ্ছন্ন এবং থেমে থেমে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হচ্ছে।

ট্যাগ: bdnewshour24