banglanewspaper

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের (ডিবি) একাধিক টিম রাজধানীতে অভিযান চালিয়ে অজ্ঞান পার্টির ৫৯ জন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে। বুধবার (২৯ জুলাই) হরাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় ধারাবাহিকভাবে অভিযান পরিচালনা করে গোয়েন্দা ওয়ারী বিভাগ ১৬ জন, সাইবার অ্যান্ড স্পেশাল ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগ ১০ জন, গোয়েন্দা মতিঝিল বিভাগ ৯ জন, গোয়েন্দা রমনা বিভাগ ৮ জন, গোয়েন্দা লালবাগ বিভাগ ৮ জন ও গোয়েন্দা তেজগাঁও বিভাগ ৮ জন মোট ৫৯ জন অজ্ঞান পার্টির সদস্যকে গ্রেফতার করেছে।

এ সময় তাদের হেফাজত হতে ২৪০ পিস চেতনানাশক ট্যাবলেট, ৪টি তরল মুভ স্পে বোতল, ৯টি মলমের কৌটা, ৭টি হারবাল পেইন কিলার, ৫টি চাকু, গুল, ৯ চেতনানাশক হালুয়াসহ মরিচের গুঁড়া ও জামবাগ উদ্ধার করা হয়।

বৃহস্পতিবার (৩০ জুলাই) দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এ বিষয়ে বিস্তারিত বলেন অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ডিবি) মো. আবদুল বাতেন।

ব্রিফিংয়ে ডিবির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার বলেন, অজ্ঞান পার্টির সদস্যরা চেতনানাশক ঔষধ বা লিকুইড কৌশলে চা, ডাব, পানীয় বা অন্যকোন খাবারের সাথে মিশিয়ে টার্গেটকৃত ব্যক্তিকে খাওয়ায়ে সর্বস্ব লুটে নেয়। এছাড়াও তারা গুল, মরিচের গুঁড়া বা মলম চোখে মাখিয়ে মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে যায়। মানুষের সমাগম স্থানে এরা তৎপর থাকলেও কোরবানির পশুর হাটকে কেন্দ্র করে তারা তৎপর ছিল। গোয়েন্দা বিভাগ ২/৩ দিন যাবৎ এদের ধরতে কাজ করেছে। আমরা আশা করছি অজ্ঞান পার্টির এই সদস্যগুলো গ্রেফতারে পশুর হাটের কেনা-বেচা নিরাপদ হবে।

এ সংক্রান্তে গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অন্যদিকে পল্লবী থানায় বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ও গ্রেফতারকৃতদের বিষয়ে অতিরিক্ত কমিশনার আব্দুল বাতেন বলেন, এ ঘটনায় কোনো জঙ্গি সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়নি।

ট্যাগ: bdnewshour24