banglanewspaper

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে বরাদ্দ দেওয়া গবেষণার টাকা গবেষণাতেই খরচ করতে হবে বলে জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন (ইউজিসি)। এছাড়া এসব বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকরিবিধির যথাযথ প্রয়োগ ও প্রতিপালন এবং ডিভাইস কেনায় আর্থিকভাবে অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীর তালিকা প্রণয়নে ৪৫ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদেরকে চিঠি দিয়েছে ইউজিসি।

রবিবার (৯ আগস্ট) পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বরাবর লেখা পৃথক তিনটি চিঠিতে এসব অনুরোধ জানানো হয়।

ইউজিসির পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় ম্যানেজমেন্ট বিভাগের পরিচালক মো. কামাল হোসেনের সই করা চিঠিগুলো বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বরাবর পাঠানো হয়েছে।

সেখানে বলা হয়েছে, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত শিক্ষক-কর্মকর্তা বা কর্মচারী কর্তৃক নিজ নিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরিবিধি যথাযথভাবে অনুসরণ ও প্রতিপালন করা অবশ্য কর্তব্য। চাকরিবিধি অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত কোনো শিক্ষক, কর্মকর্তা বা কর্মচারী যথাযথ কর্তৃপক্ষের বিনানুমতিতে অন্যকোনো সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান কিংবা ব্যক্তিগতভাবে কোনো ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা বা কোনো ধরনের লাভজনক প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে জড়িত থাকতে পারেন না।

কিন্তু কোনো কোনো পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীগণের মধ্যে কেউ কেউ চাকরিবিধি অমান্য করে কর্তৃপক্ষের পূর্বানুমোদন ব্যতিরেকে একদিকে যেমন সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কাজ করে যাচ্ছেন, অন্যদিকে আবার কেউ কেউ ব্যক্তিগতভাবে ব্যবসা-প্রতিষ্ঠানও পরিচালনা করছেন যা কমিশনের গোচরিভূত হয়েছে।

এসব কর্মকাণ্ড চাকরি বিধিমালার সুস্পষ্ট লঙ্ঘন। বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক স্বার্থে স্ব-স্ব বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকরিবিধি যথাযথ প্রয়োগ, অনুসরণ ও প্রতিপালনের নিশ্চয়তা বিধানের জন্য উপাচার্যদেরকে অনুরোধ জানানো হয়।

গবেষণাখাতের অর্থ গবেষণা কার্যক্রমে ব্যয় করার নিয়ম থাকলেও কোনো কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে এ নিয়ম মানা হচ্ছে না। গবেষণাখাতে বরাদ্দ করা টাকা শুধু নির্বাচিত গবেষণাপ্রকল্পের কার্যক্রমে ব্যয়ের নিশ্চয়তা বিধানের জন্য অনুরোধ করেছে ইউজিসি।

এছাড়া অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমে যাতে সকল শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করতে পারে, সে লক্ষ্যে উচ্চগতিসম্পন্ন ইন্টারনেট সুবিধাসহ শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে ডাটা সরবরাহ এবং সফট লোন/মঞ্জুরীর আওতায় স্মার্টফোন সুবিধার নিশ্চয়তা বিধানের জন্য কমিশন থেকে শিক্ষামন্ত্রীর বরাবর জানানো হয়েছে।

আর্থিক সক্ষমতা নেই এমন সকল শিক্ষার্থীর নির্ভুল তালিকা ২৫ আগস্টের জমা দেওয়া হবে।

ট্যাগ: bdbdnewshour24