banglanewspaper

অবশেষে অপেক্ষার অবসান। হাজারো বিতর্কের মাঝেই প্রকাশ্যে ‘সড়ক ২’ সিনেমার ট্রেলার। নয়ের দশকের ছবি ‘সড়ক’ সিনেমার আমেজ রেখেই সিক্যুয়েল গড়েছেন পরিচালক মহেশ ভাট। ট্রেলারেই মিলল তার ইঙ্গিত। দু’দশক আগের সেই ছবির কাহিনি যেখানে শেষ হয়েছিল, সেখান থেকেই শুরু হয়েছে ‘সড়ক ২’র গল্প। ট্রেলারেই বাজিমাত করলেন সঞ্জয় দত্ত। 

 

প্রেমিকার মৃত্যুর পর বেঁচে থাকার আশাই হারিয়ে ফেলেছে সঞ্জয় দত্ত অভিনীত চরিত্রটি। নয়ের দশকের স্ক্রিন কাঁপানো সেই হিট জুটি- সঞ্জয় দত্ত এবং পূজা ভাট। সেই রোম্যান্স, আবেগের রেশ ধরেই সিক্যুয়েলের শুরু। 

 

মাঝবয়সি ‘দেবদাস’, জীবন নিয়ে উদাসীন সঞ্জয়ের জীবনে একরাশ খোলা হাওয়ার মতো প্রবেশ করে আর্যা। এক প্রাণবন্ত, সদা উচ্ছ্বল মেয়ে। যে চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলিয়া ভাট। অন্যদিকে আর্যার প্রেমিকের চরিত্রে রয়েছেন আদিত্য রায় কাপুর। এই তিন চরিত্র সড়কপথে দীর্ঘ এক সফরে যাবে বলে মনস্থ করে। ভাবনার নেপথ্যে যদিও সেই প্রাণবন্ত আর্যা (আলিয়া ভাট)। কৈলাস পর্বতের উদ্দেশে বেরিয়ে পড়ে তারা। সেই ট্রিপে গিয়েই মোড় ঘোরে কাহিনির। 

 

আর্যাকে খুন করার ছক কষে এক গুরুজি, যে চরিত্রে দেখা গেল মকরকন্দ দেশপাণ্ডেকে। গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে রয়েছেন যিশু সেনগুপ্ত। রহস্য-রোমাঞ্চে মোড়া এই ট্রেলারেই ইঙ্গিত মিলল ২ দশক পর যে ফের স্বমহিমায় বলিউড পরিচালকের আসনে প্রত্যাবর্তন ঘটাতে চলেছেন মহেশ ভাট। যদিও বিতর্কের রেশ ধরে তা কতটা সম্ভব, সময়ই বলবে সেকথা।

 

প্রসঙ্গত ট্রেলার প্রকাশের আগেই এলো এক অপ্রত্যাশিত সংবাদ! ক্যানসারে আক্রান্ত অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত, যিনি কিনা এ ছবিতেও গুরুত্বপূর্ণ ছবিতে অভিনয় করেছেন। আর সেই কারণেই চিকিৎসার জন্য সিনেমা থেকে সাময়িক বিরতি নিচ্ছেন তিনি।

 

নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে সঞ্জয় লিখেছেন, “বন্ধুরা, চিকিৎসার জন্য আমি কাজ থেকে সাময়িক বিরতি নিচ্ছি। আমার পরিবার ও আমার বন্ধুরা আমার সঙ্গে রয়েছেন। আর আমার প্রত্যেক শুভানুধ্যায়ীর কাছে আবেদন কোনও চিন্তা করবেন না আর দয়া করে গুজব রটাবেন না। আপনাদের ভালোবাসা আর শুভেচ্ছায় আমি খুব শিগগিরিই ফিরে আসব!”

ট্যাগ: bdnewshour24