banglanewspaper

না ফেরার দেশে পাড়ি জমিয়েছেন বরেণ্য চিত্রশিল্পী মুর্তজা বশীর। 

শনিবার (১৫ আগস্ট) সকাল ৯টা ১০ মিনিটে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালের মেডিকেল ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (এমআইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৮ বছর। 

মুর্তজা বশীরের পারিবারিক বন্ধু আলোকচিত্রী মোহাম্মদ আসাদ মৃত্যুর বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। 

এর আগে গতকাল শুক্রবার মুর্তজা বশীরের মেয়ে মুনীরা বশীর জানিয়েছিলেন, বৃহস্পতিবার রাত দেড়টার দিকে মুর্তজা বশীরকে এমআইসিইউতে ভর্তি করা হয়। তিনি দীর্ঘদিন যাবত হৃদরোগ, ফুসফুস ও কিডনির জটিলতায় ভুগছিলেন। 

শুক্রবার বিকেলেই চিকিৎসকরা জানান, নমুনা পরীক্ষা করে মুর্তজা বশীরের শরীরে নভেল করোনা ভাইরাস পজিটিভ এসেছে।

৮৮ বছর বয়সী এ চিত্রশিল্পী এর আগে বিভিন্ন শারীরিক জটিলতা নিয়ে একাধিকবার হাসপাতালে চিকিৎসা নেন। মুনীরা বশীর তার বাবার জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন। 

বাংলাদেশের বিমূর্ত বাস্তবতার চিত্রকলার অন্যতম পথিকৃত মুর্তজা বশীরের ‘দেয়াল’, ‘শহীদ শিরোনাম’, ‘পাখা’ ছাড়াও বেশকিছু উল্লেখযোগ্য চিত্রমালা রয়েছে। এছাড়াও এই ভাষা সংগ্রামীর ‘রক্তাক্ত ২১শে’ শিরোনামে ভাষা আন্দোলনের পটভূমিতে ‘লিনোকাট’ মাধ্যমে একটি চিত্রকর্ম রয়েছে।  

চিত্রকলা ছাড়াও শিল্পের অন্যান্য মাধ্যমেও তিনি অবদান রেখেছেন। ‘টাটকা রক্তের ক্ষীণরেখা’ শিরোনামে একটি বইতে নিজের লিখা কবিতার ইংরেজি অনুবাদ প্রকাশ করেছেন। এছাড়াও ১৯৭৯ সালে তার লিখা ‘আলট্রামেরিন’ উপন্যাস প্রকাশিত হয়। মুদ্রা ও শিলালিপি নিয়েও তিনি গবেষণা করেছেন। 

ভাষাবিদ ড. মুহাম্মদ শহীদুল্লাহর পুত্র মুর্তজা বশীর ১৯৩২ সালের ১৭ আগস্ট ঢাকার রমনায় জন্মগ্রহণ করেন। কর্মজীবনে তিনি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা বিভাগের অধ্যাপক ও চেয়ারম্যান ছিলেন।

খ্যাতিমান এই চিত্রশিল্পী চিত্রকলায় অসামান্য অবদানের জন্য ১৯৮০ সালে একুশে পদক ও ২০১৯ সালে স্বাধীনতা পুরস্কারে ভূষিত হন। 

ট্যাগ: bdnewshour24