banglanewspaper

সৌদি আরবের রাজনৈতিক ব্যবস্থা এবং জাতীয় নিরাপত্তার ক্ষতি করার অভিযোগে এক নারী অধিকারকর্মীকে কারাদণ্ড দিয়েছেন দেশটির একটি আদালত। লুজাইন আল-হাথলুল নামের ওই অধিকারকর্মীকে ২০১৮ সাল থেকে গ্রেপ্তার করে রাখা হয়েছিল। সোমবার আদালত তার পাঁচ বছর আট মাসের কারাবাসের রায় দেন।

বিভিন্ন সংস্থার প্রতিবাদ অগ্রাহ্য করে সোমবার দেশটির আদালত তাকে ওই দণ্ড দেন। ৩১ বছর বয়সী হাথলুলের বিরুদ্ধে অনেকগুলো গুরুতর অভিযোগ আনা হয়েছে। এর মধ্যে সৌদি আরবের রাজনৈতিক ব্যবস্থা এবং জাতীয় নিরাপত্তার ক্ষতি করার মতো অভিযোগও রয়েছে। হাথলুল একাই শুধু অভিযুক্ত নন, তার সঙ্গে আরও কিছু নারীর বিরুদ্ধেও একই অভিযোগ রয়েছে।

তবে অভিযোগগুলোকে জাতিসংঘের মানবাধিকার বিশেষজ্ঞরা স্রেফ ভুয়া বলে উড়িয়ে দিয়েছেন। যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বিভিন্ন দেশের স্থানীয় অধিকারকর্মীরা হাথলুলের মুক্তির দাবি জানিয়েছেন। এ বিষয়ে বিভিন্ন পদেক্ষপ নেওয়ার কাজও শুরু করা হয়েছে।

হাথলুল তার বিরুদ্ধে আনা সব অভিযোগই অস্বীকার করেছেন। তার পরিবারও তাকে নির্দোষ দাবি করে মুক্তির দাবি জানিয়েছে। তারা জেল হাজতে তার ওপর শারীরিক নির্যাতনের কথা বললেও আদালত তাদের দাবি নাকচ করে দিয়েছেন। 

ট্যাগ: bdnewshour24